শরীরে এনার্জি আনতে কোন কাজের পর কী খাবেন

কোন কাজের পর কোন ধরনের খাবার খাওয়া উচিৎ- এনিয়ে বেশিরভাগ মানুষেরই কোনো মাথা ব্যথা নেই। অথচ, সঠিক খাবার খেলে একটি কাজ করার শেষে আরেকটি কাজ করার এনার্জি দ্রুত পাওয়া যায়।

 

সারাদিনে মানুষ পাঁচ থেকে ছয় বার খেয়ে থাকে। সকাল, দুপুর ও রাতেই অধিক পরিমাণে খাওয়া হয়। তবে এর বাইরে অন্য সময়ে হালকা কিছু নাস্তা খেয়ে থাকেন সবাই। সারাদিন অনেকেই নানান কাজের মধ্যে ব্যস্ত থাকেন। দেহ হয়ে পড়ে দুর্বল। কারণ হলো এইসব কাজে অনেক ক্যালোরি ক্ষয় হয়। তাহলে আুসন জেনে নিই কোন কাজের পর কী খেলে শরীর সুস্থ থাকবে এবং কাজে গতি আসবে।

যা খাবেন নির্ঘুম রাতের শেষে:বিছানায় শুয়ে পুরো রাত এপাশ-ওপাশ করে কাটিয়ে দেন। অনেকেই অনিদ্রা রোগে ভুগে থাকেন। কিন্তু রাতের অনিদ্রায় শরীরে ভর করে ক্লান্তি। কিন্তু কাজের জন্য সকালে ঠিকই উঠতে হয়। এই সময়ে আপনার দরকার ক্লান্তি দূর করার জন্য পুষ্টিকর কিছু। সকালে নাস্তায় খান একমুঠো বাদাম। সঙ্গে রাখুন এক/দুই টুকরো মাংস। সকালটা একটু গড়িয়ে এলে একটি কলা ও সামান্য দই। দেখবেন রাতের ক্লান্তি বিছানায়ই রয়ে গেছে। আপনি আছেন স্বতঃস্ফূর্ত।

 

দীর্ঘ সময়ের মিটিংয়ের পর যা খাবেন:কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবার শরীরে এনার্জি দেয়। কিন্তু কার্বোহাইড্রেটের জন্য অবশ্যই চিনি জাতীয় খাবার খাবেন না। এক টুকরো রুটি খেতে পারেন। সঙ্গে নিন সামান্য সবজি জাতীয় কিছু। আর এগুলো খেতে না চাইলে খেতে পারেন কাঠবাদাম। কাঠবাদাম আপনার ক্লান্তি দূর করবে এবং পরবর্তী কাজের জন্য ব্রেনকে সজাগ রাখতে সাহায্য করবে। অথবা প্রোটিন জাতীয় কিছু খেতে পারেন। একটি ডিমই প্রয়োজনীয় প্রোটিনের জন্য যথেষ্ট। অফিসের মিটিংগুলো বরাবরই একটু বোরিং হয়। কিন্তু এতে ব্রেনের ওপরে চাপ পড়ে বেশি মাত্রায়। যদি আপনি প্রেজেন্টেশন করেন তবে আপনার শরীর ও ব্রেন দুটোই হবে ক্লান্ত। এই সময় আপনার দরকার শরীরকে এনার্জি দেয় এমন খাবার।

 

ব্যায়াম শেষের খাবার:শারীরিক ব্যায়ামের পর- অনেকেই আছেন ওজন কমানোর আশায় ব্যায়াম করেন এবং এরপর তেমন পুষ্টিকর কোনো খাবার খান না এই ভেবে যে মুটিয়ে যেতে পারেন। কিন্তু ডায়েটেশিয়ানদের মতে, ব্যায়াম শেষে অবশ্যই পুষ্টিকর কিছু খাবার খেতে হয়। শারীরিক ব্যায়ামের ব্যয়িত সময় ও ব্যায়ামের মাত্রার ওপর নির্ভর করে আপনি ব্যায়াম শেষে কী খাবেন এবং তা ব্যায়াম শেষের ৩০ মিনিট বা ১ ঘণ্টার মধ্যে। খাবারের কার্বোহাইড্রেট ও প্রোটিনের অনুপাত থাকতে হবে ২ : ১।

 

ব্যায়াম শেষে সব থেকে ভালো খাবার হলো- ১ টুকরো রুটি, চকোলেট দুধ ও খানিকটা বাটার। এতে ব্যায়ামের পরও দেহ ও মন চাঙ্গা থাকবে।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিক্রি ও সেবনের অপরাধে ৮৩ জন আটক

» মেয়াদ উত্তীর্ণ ওষুধ কী করবেন?

» রাজধানীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নির্মাণ শ্রমিকের মৃত্যু

» বগুড়ার ১৪ এলাকায় ৩ দিন গ্যাস থাকবে না

» যাক্কুম, এক বীভৎস ফলের গাছ

» নবম শ্রেণির বাদ পড়া শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন ও সংশোধন শুরু

» গর্ভপাত শব্দটি বলতে পারবেন না ফেসবুক কর্মীরা

» ফরিদপুর থেকে ফেন্সিডিলসহ এক মাদক ব্যাবসায়ী আটক

» বেগমগঞ্জে ইয়াবাসহ কারবারি গ্রেপ্তার

» আজ বিশ্ব জীববৈচিত্র্য দিবস

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

শরীরে এনার্জি আনতে কোন কাজের পর কী খাবেন

কোন কাজের পর কোন ধরনের খাবার খাওয়া উচিৎ- এনিয়ে বেশিরভাগ মানুষেরই কোনো মাথা ব্যথা নেই। অথচ, সঠিক খাবার খেলে একটি কাজ করার শেষে আরেকটি কাজ করার এনার্জি দ্রুত পাওয়া যায়।

 

সারাদিনে মানুষ পাঁচ থেকে ছয় বার খেয়ে থাকে। সকাল, দুপুর ও রাতেই অধিক পরিমাণে খাওয়া হয়। তবে এর বাইরে অন্য সময়ে হালকা কিছু নাস্তা খেয়ে থাকেন সবাই। সারাদিন অনেকেই নানান কাজের মধ্যে ব্যস্ত থাকেন। দেহ হয়ে পড়ে দুর্বল। কারণ হলো এইসব কাজে অনেক ক্যালোরি ক্ষয় হয়। তাহলে আুসন জেনে নিই কোন কাজের পর কী খেলে শরীর সুস্থ থাকবে এবং কাজে গতি আসবে।

যা খাবেন নির্ঘুম রাতের শেষে:বিছানায় শুয়ে পুরো রাত এপাশ-ওপাশ করে কাটিয়ে দেন। অনেকেই অনিদ্রা রোগে ভুগে থাকেন। কিন্তু রাতের অনিদ্রায় শরীরে ভর করে ক্লান্তি। কিন্তু কাজের জন্য সকালে ঠিকই উঠতে হয়। এই সময়ে আপনার দরকার ক্লান্তি দূর করার জন্য পুষ্টিকর কিছু। সকালে নাস্তায় খান একমুঠো বাদাম। সঙ্গে রাখুন এক/দুই টুকরো মাংস। সকালটা একটু গড়িয়ে এলে একটি কলা ও সামান্য দই। দেখবেন রাতের ক্লান্তি বিছানায়ই রয়ে গেছে। আপনি আছেন স্বতঃস্ফূর্ত।

 

দীর্ঘ সময়ের মিটিংয়ের পর যা খাবেন:কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবার শরীরে এনার্জি দেয়। কিন্তু কার্বোহাইড্রেটের জন্য অবশ্যই চিনি জাতীয় খাবার খাবেন না। এক টুকরো রুটি খেতে পারেন। সঙ্গে নিন সামান্য সবজি জাতীয় কিছু। আর এগুলো খেতে না চাইলে খেতে পারেন কাঠবাদাম। কাঠবাদাম আপনার ক্লান্তি দূর করবে এবং পরবর্তী কাজের জন্য ব্রেনকে সজাগ রাখতে সাহায্য করবে। অথবা প্রোটিন জাতীয় কিছু খেতে পারেন। একটি ডিমই প্রয়োজনীয় প্রোটিনের জন্য যথেষ্ট। অফিসের মিটিংগুলো বরাবরই একটু বোরিং হয়। কিন্তু এতে ব্রেনের ওপরে চাপ পড়ে বেশি মাত্রায়। যদি আপনি প্রেজেন্টেশন করেন তবে আপনার শরীর ও ব্রেন দুটোই হবে ক্লান্ত। এই সময় আপনার দরকার শরীরকে এনার্জি দেয় এমন খাবার।

 

ব্যায়াম শেষের খাবার:শারীরিক ব্যায়ামের পর- অনেকেই আছেন ওজন কমানোর আশায় ব্যায়াম করেন এবং এরপর তেমন পুষ্টিকর কোনো খাবার খান না এই ভেবে যে মুটিয়ে যেতে পারেন। কিন্তু ডায়েটেশিয়ানদের মতে, ব্যায়াম শেষে অবশ্যই পুষ্টিকর কিছু খাবার খেতে হয়। শারীরিক ব্যায়ামের ব্যয়িত সময় ও ব্যায়ামের মাত্রার ওপর নির্ভর করে আপনি ব্যায়াম শেষে কী খাবেন এবং তা ব্যায়াম শেষের ৩০ মিনিট বা ১ ঘণ্টার মধ্যে। খাবারের কার্বোহাইড্রেট ও প্রোটিনের অনুপাত থাকতে হবে ২ : ১।

 

ব্যায়াম শেষে সব থেকে ভালো খাবার হলো- ১ টুকরো রুটি, চকোলেট দুধ ও খানিকটা বাটার। এতে ব্যায়ামের পরও দেহ ও মন চাঙ্গা থাকবে।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com