শপথ নিলেন কলম্বিয়ার প্রথম বামপন্থি প্রেসিডেন্ট গুস্তাভো পেট্রো

কলম্বিয়ার প্রথম বামপন্থি প্রেসিডেন্ট হিসেবে রবিবার শপথ নিয়েছেন গুস্তাভো পেট্রো। শপথ গ্রহণ শেষে তিনি বৈষম্য এবং জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে মেরুকৃত দেশকে একত্রিত করার এবং দেশে শান্তি অর্জন ও মাদকের বিরুদ্ধে ‘ব্যর্থ’ যুদ্ধের অবসানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

 

এম-১৯ গেরিলা গোষ্ঠীর প্রাক্তন সদস্য পেট্রো রবিবার বিকেলে বোগোটার বলিভার প্লাজায় সিনেটের প্রেসিডেন্ট রয় ব্যারেরাসের উপস্থিতিতে শপথ গ্রহণ করেন। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন স্প্যানিশ রাজা ফিলিপ ষষ্ঠসহ প্রায় ১ লাখ আমন্ত্রিত অতিথিরা। অনুষ্ঠানে অন্তত নয়জন ল্যাটিন আমেরিকান রাষ্ট্রপতি এবং অন্যান্য কলম্বিয়ান বিশিষ্টজনদেরও আমন্ত্র জানান পেট্রো। সকলেই সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

 

উদ্বোধনী বক্তৃতায় পেট্রো বলেন, ‘আমি দুটি দেশ চাই না, আমি দুটি সমাজ চাই না। আমি একটি শক্তিশালী, ন্যায়সঙ্গত এবং ঐক্যবদ্ধ কলম্বিয়া চাই। একটি জাতি হিসেবে আমাদের যে চ্যালেঞ্জ এবং পরীক্ষা রয়েছে তা ঐক্য আর মৌলিক ঐকমত্যের সময়ের দাবি করে।

 

পেট্রো ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি (ইএলএন) বিদ্রোহীদের সঙ্গে ভেঙ্গে পড়া শান্তি আলোচনা পুনরুজ্জীবিত করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন এবং ফার্ক গেরিলাদের প্রাক্তন সদস্য যারা এটি প্রত্যাখ্যান করেছে তাদের জন্য ২০১৬ সালের শান্তি চুক্তি প্রয়োগ করবেন।

 

তার পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন, সরকার দলগুলোর সঙ্গে সংলাপ করবে এবং মাদক পাচারের তথ্যের বিনিময়ে সদস্যদের সাজা কমিয়ে দেবে।

 

সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলিকে সেই চুক্তি মেনে নেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেছিলেন পেট্রো।

 

তিনি মাদক পাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য একটি নতুন আন্তর্জাতিক কৌশলের আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, মাদকের বিরুদ্ধে মার্কিন নেতৃত্বাধীন যুদ্ধ ব্যর্থ হয়েছে। এটি একটি নতুন আন্তর্জাতিক কনভেনশনের সময় যা স্বীকার করে মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ব্যর্থ হয়েছে। এর ফলে গত ৪০ বছরে ১০ লাখ লাতিন আমেরিকানকে মারা গেছে। পাশাপাশি প্রতিবছর ৭০ হাজার উত্তর আমেরিকান মারা গেছে। মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ মাফিয়াদের শক্তিশালী এবং রাষ্ট্রকে দুর্বল করেছে।

 

প্রেসিডেন্ট হিসেবে পেট্রোর প্রথম আদেশ ছিল, সামরিক বাহিনীর জন্য লাতিন আমেরিকার মুক্তিকামী নায়ক সাইমন বলিভারের তলোয়ার (এটি ১৯৭৪ সালে পেট্রোর পূর্ববর্তী এম-১৯ কমরেডরা চুরি করেছিল) প্লাজায় প্রদর্শন করা হবে।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» ১৫ টাকায় ম্যাগনেট মামার খিচুড়ি

» একাত্তর ছেড়ে ডিবিসিতে যোগ দিলেন নাজনীন মুন্নী

» উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দুর্বৃত্তের গুলিতে শিশু নিহত

» প্রশ্নফাঁস চেষ্টাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে :

» থানাকে জনগণের ভরসাস্থল করতে চাই: আইজিপি

» করোনা আক্রান্ত মেয়র আতিক

» চুমু নিয়ে রাশমিকার তিক্ত অভিজ্ঞতা

» আপিল বিভাগে জানা যাবে শিশুটির বাবা কে?

» সমুদ্রবন্দরে তিন নম্বর সতর্ক সংকেত, নদীবন্দরে ১

» মোবাইল ছিনিয়ে পালানোর সময় ছিনতাইকারী আটক

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

শপথ নিলেন কলম্বিয়ার প্রথম বামপন্থি প্রেসিডেন্ট গুস্তাভো পেট্রো

কলম্বিয়ার প্রথম বামপন্থি প্রেসিডেন্ট হিসেবে রবিবার শপথ নিয়েছেন গুস্তাভো পেট্রো। শপথ গ্রহণ শেষে তিনি বৈষম্য এবং জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে মেরুকৃত দেশকে একত্রিত করার এবং দেশে শান্তি অর্জন ও মাদকের বিরুদ্ধে ‘ব্যর্থ’ যুদ্ধের অবসানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

 

এম-১৯ গেরিলা গোষ্ঠীর প্রাক্তন সদস্য পেট্রো রবিবার বিকেলে বোগোটার বলিভার প্লাজায় সিনেটের প্রেসিডেন্ট রয় ব্যারেরাসের উপস্থিতিতে শপথ গ্রহণ করেন। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন স্প্যানিশ রাজা ফিলিপ ষষ্ঠসহ প্রায় ১ লাখ আমন্ত্রিত অতিথিরা। অনুষ্ঠানে অন্তত নয়জন ল্যাটিন আমেরিকান রাষ্ট্রপতি এবং অন্যান্য কলম্বিয়ান বিশিষ্টজনদেরও আমন্ত্র জানান পেট্রো। সকলেই সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

 

উদ্বোধনী বক্তৃতায় পেট্রো বলেন, ‘আমি দুটি দেশ চাই না, আমি দুটি সমাজ চাই না। আমি একটি শক্তিশালী, ন্যায়সঙ্গত এবং ঐক্যবদ্ধ কলম্বিয়া চাই। একটি জাতি হিসেবে আমাদের যে চ্যালেঞ্জ এবং পরীক্ষা রয়েছে তা ঐক্য আর মৌলিক ঐকমত্যের সময়ের দাবি করে।

 

পেট্রো ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি (ইএলএন) বিদ্রোহীদের সঙ্গে ভেঙ্গে পড়া শান্তি আলোচনা পুনরুজ্জীবিত করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন এবং ফার্ক গেরিলাদের প্রাক্তন সদস্য যারা এটি প্রত্যাখ্যান করেছে তাদের জন্য ২০১৬ সালের শান্তি চুক্তি প্রয়োগ করবেন।

 

তার পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন, সরকার দলগুলোর সঙ্গে সংলাপ করবে এবং মাদক পাচারের তথ্যের বিনিময়ে সদস্যদের সাজা কমিয়ে দেবে।

 

সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলিকে সেই চুক্তি মেনে নেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেছিলেন পেট্রো।

 

তিনি মাদক পাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য একটি নতুন আন্তর্জাতিক কৌশলের আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, মাদকের বিরুদ্ধে মার্কিন নেতৃত্বাধীন যুদ্ধ ব্যর্থ হয়েছে। এটি একটি নতুন আন্তর্জাতিক কনভেনশনের সময় যা স্বীকার করে মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ব্যর্থ হয়েছে। এর ফলে গত ৪০ বছরে ১০ লাখ লাতিন আমেরিকানকে মারা গেছে। পাশাপাশি প্রতিবছর ৭০ হাজার উত্তর আমেরিকান মারা গেছে। মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ মাফিয়াদের শক্তিশালী এবং রাষ্ট্রকে দুর্বল করেছে।

 

প্রেসিডেন্ট হিসেবে পেট্রোর প্রথম আদেশ ছিল, সামরিক বাহিনীর জন্য লাতিন আমেরিকার মুক্তিকামী নায়ক সাইমন বলিভারের তলোয়ার (এটি ১৯৭৪ সালে পেট্রোর পূর্ববর্তী এম-১৯ কমরেডরা চুরি করেছিল) প্লাজায় প্রদর্শন করা হবে।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com