ব্যক্তিগত অনুষ্ঠানে নাচিয়ে ঐশ্বরিয়াকে ১০ কোটি রুপি দিয়েছিলেন আসিফ আলি জারদারি

বলিউডের তারকাদের নিয়ে প্রায়ই বিভিন্ন ধরনের বিতর্ক বেরিয়ে আসে। সত্য কিংবা মিথ্যা যাই হোক না কেন, এসব বিতর্ক নিয়ে অস্বস্তিতে পড়তে হয় তারকাদের। এমন বহু অস্বস্তিকর বিতর্কে জড়িয়েছেন বিশ্ব সুন্দরী ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চনও।

 

মডেলিং থেকে ‘বিশ্বসুন্দরী’-র খেতাব। তারপর বলিউডের নায়িকা। দেশীয় গণ্ডি পেরিয়ে হলিউড। তা ছাড়িয়ে কান ফিল্মোৎসবের রেড কার্পেটে দাঁড়ানো। নিজের ক্যারিয়ারে বহু সোনালি মুহূর্ত দেখেছেন অমিতাভ বচ্চনের পূত্রবধূ। এসব অর্জনের মধ্যেও অস্বস্তিকর বিতর্কেও জড়িয়েছেন একাধিকবার।

 

কখনও গভীর রাতে নিজের বাড়ির সামনে ‘প্রেমিক’ সালমান চিৎকার-চেঁচামেচি। কখনও বা স্বামী অভিষেক বচ্চনের সামনেই একমঞ্চে অজয় দেবগানের ‘চুমু’। আবার এক সময় খোদ অমিতাভের সঙ্গে তার ‘সম্পর্ক’ নিয়ে জল্পনা। এমন সব অস্বস্তিকর বিতর্কে জড়ালে কার মেজাজ ঠাণ্ডা থাকে বলুন তো? এসব বিতর্কে ঐশ্বরিয়ারও মেজাজ বিগড়ে যেতে বাধ্য। তার ভক্তরা হামেশাই এ কথা বলেন।

সালমান খানের সঙ্গে ঐশ্বরিয়ার সম্পর্ক নিয়ে এক সময় কম জলঘোলা হয়নি। শোনা যায়, ১৯৯৯ সালে সঞ্জয় লীলা বানসালীর ‘হাম দিল দে চুকে সানাম’ ফিল্মে একসঙ্গে কাজ করার সময় ডেটিং করছিলেন তারা। ২০০১ সালে সে জুটি ভেঙে খানখান। তার আগে অবশ্য সালমানকে জড়িয়ে অস্বস্তিতে পড়েছেন ঐশ্বরিয়া।

 

সালমানের বিরুদ্ধে তাকে ধোঁকা দেওয়া, শারীরিকভাবে হেনস্থার অভিযোগও করেছিলেন। যদিও তা মানতে নারাজ সালমান। ব্রেক-আপের আগে একবার নাকি রাত তিনটার সময় ঐশ্বরিয়ার অ্যাপার্টমেন্টের বাইরে চিৎকার-চেঁচামেচি করেছিলেন সাল্লু মিয়া। ঐশ্বরিয়ার দরজা ধাক্কাতেও অনেকে তাকে দেখেছিলেন বলেও দাবি।

 

সালমান ছাড়া অজয়কে নিয়েও কম বিব্রত হননি ঐশ্বরিয়া। তখন সালমান অতীত। অভিষেকের সঙ্গে চুটিয়ে ঘরকন্না করছেন। একটি অনুষ্ঠানে অভিষেকের সামনেই ঐশ্বরিয়াকে এমনভাবে জড়িয়ে ধরেন অজয়, যা নিয়েও কম বিতর্ক হয়নি। পেজ থ্রি’র পাতায় ওই ছবি দেখে অনেকেরই মনে হয়েছিল, ঐশ্বরিয়াকে চুমু খাচ্ছেন অজয়।

 

অমিতাভের সঙ্গে তিনি নাকি ‘ডেটিং’ করছেন। কানাঘুষায় এমনও শুনেছেন ঐশ্বরিয়া। একটি বলিউডি ইভেন্টে দু’জনের ছবি ভাইরালও হয়েছিল।

 

বিতর্ক তো খ্যাতনামীদের জীবনের অঙ্গ। অনেকে এমন কথা বলতেই পারেন। তবে অস্বস্তিতে পড়লে কার ভাল লাগে বলুন তো? ফের অস্বস্তিতে পড়েন ঐশ্বরিয়া। এবার অবশ্য প্রতিবেশী দেশের সাবেক প্রেসিডেন্টকে জড়িয়ে।

 

পাকিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি নাকি ঐশ্বরিয়াকে ১০ কোটি রুপি দিয়েছিলেন। ২০০৮ সালে পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন তার বাসভবনে একটি ব্যক্তিগত অনুষ্ঠানে পারর্ফম করার জন্যই ওই টাকা নিয়েছিলেন ঐশ্বরিয়া। এ দাবি নাকি করেছেন পাকিস্তানের রাজনৈতিক বিশ্লেষক শাহিদ মাসুদ।

 

ওই ‘ঘটনা’র সময় পাকিস্তানের একটি টেলিভিশন চ্যানেলে লাইভ চ্যাট শো করতেন মাসুদ। ভারতের একটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত রিপোর্টে দাবি, ওই চ্যাট শোয়ে এ কথা বলেছেন তিনি। জারদারির একটি ঘনিষ্ঠ সূত্রের মাধ্যমে তিনি জানতে পারেন যে পাক প্রেসিডেন্টের বাসভবনের অনুষ্ঠানে এক রাতে নৃত্য পরিবেশনা করেন ঐশ্বরিয়া। সে জন্যই নাকি তাকে ১০ কোটি রুপি দেন জারদারি।

 

সত্যি কি মিথ্যা তা জানা নেই। তবে মাসুদের দাবি ঘিরে পাকিস্তানের অনেকেই হতবাক। শোনা যায়, গোটা বিতর্কে মুখ না খুললেও তাতে আহত হয়েছেন ঐশ্বরিয়া।

 

নিজের দাবি সত্ত্বেও এ নিয়ে কোনও প্রমাণ পেশ করতে পারেননি মাসুদ। ওই ‘তথাকথিত অনুষ্ঠান’-এর কোনও ভিডিও ফুটেজ বা প্রত্যক্ষদর্শীর নাম করতে পারেননি তিনি। তবে চ্যাট শো-এ মাসুদ যে এ কথা বলেছেন, তার ভিডিও নিজেদের জিম্মায় রয়েছে বলে দাবি একটি ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের।

সূত্র: আনন্দবাজার

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» আগামীকাল সংবাদ সম্মেলন ডেকেছে বিএনপি

» ডিআরইউর নতুন কমিটির দায়িত্ব গ্রহণ, এনজেএফের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন

» ঢাকায় মার্কিন নাগরিকদের চলাচলে সতর্কতা

» গাবতলীতে পুলিশের চেকপোস্ট, তল্লাশি

» স্পেনে ২ ট্রেনের সংঘর্ষে আহত ১৫৫

» রামুতে পাহাড় ধসে একই পরিবারের ৪ জন নিহত

» শেখ হাসিনাকে ‘পূর্ব পৃথিবীর সূর্য’ বললেন ওবায়দুল কাদের

» বিএনপি মানুষ পোড়ানোর রাজনীতি করে: তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী

» ভারতের বিপক্ষে সিরিজ জয়ে টাইগারদের প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন

» পুলিশকে জনগণের সঙ্গে মানবিক হওয়ার নির্দেশ আইজিপির

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

ব্যক্তিগত অনুষ্ঠানে নাচিয়ে ঐশ্বরিয়াকে ১০ কোটি রুপি দিয়েছিলেন আসিফ আলি জারদারি

বলিউডের তারকাদের নিয়ে প্রায়ই বিভিন্ন ধরনের বিতর্ক বেরিয়ে আসে। সত্য কিংবা মিথ্যা যাই হোক না কেন, এসব বিতর্ক নিয়ে অস্বস্তিতে পড়তে হয় তারকাদের। এমন বহু অস্বস্তিকর বিতর্কে জড়িয়েছেন বিশ্ব সুন্দরী ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চনও।

 

মডেলিং থেকে ‘বিশ্বসুন্দরী’-র খেতাব। তারপর বলিউডের নায়িকা। দেশীয় গণ্ডি পেরিয়ে হলিউড। তা ছাড়িয়ে কান ফিল্মোৎসবের রেড কার্পেটে দাঁড়ানো। নিজের ক্যারিয়ারে বহু সোনালি মুহূর্ত দেখেছেন অমিতাভ বচ্চনের পূত্রবধূ। এসব অর্জনের মধ্যেও অস্বস্তিকর বিতর্কেও জড়িয়েছেন একাধিকবার।

 

কখনও গভীর রাতে নিজের বাড়ির সামনে ‘প্রেমিক’ সালমান চিৎকার-চেঁচামেচি। কখনও বা স্বামী অভিষেক বচ্চনের সামনেই একমঞ্চে অজয় দেবগানের ‘চুমু’। আবার এক সময় খোদ অমিতাভের সঙ্গে তার ‘সম্পর্ক’ নিয়ে জল্পনা। এমন সব অস্বস্তিকর বিতর্কে জড়ালে কার মেজাজ ঠাণ্ডা থাকে বলুন তো? এসব বিতর্কে ঐশ্বরিয়ারও মেজাজ বিগড়ে যেতে বাধ্য। তার ভক্তরা হামেশাই এ কথা বলেন।

সালমান খানের সঙ্গে ঐশ্বরিয়ার সম্পর্ক নিয়ে এক সময় কম জলঘোলা হয়নি। শোনা যায়, ১৯৯৯ সালে সঞ্জয় লীলা বানসালীর ‘হাম দিল দে চুকে সানাম’ ফিল্মে একসঙ্গে কাজ করার সময় ডেটিং করছিলেন তারা। ২০০১ সালে সে জুটি ভেঙে খানখান। তার আগে অবশ্য সালমানকে জড়িয়ে অস্বস্তিতে পড়েছেন ঐশ্বরিয়া।

 

সালমানের বিরুদ্ধে তাকে ধোঁকা দেওয়া, শারীরিকভাবে হেনস্থার অভিযোগও করেছিলেন। যদিও তা মানতে নারাজ সালমান। ব্রেক-আপের আগে একবার নাকি রাত তিনটার সময় ঐশ্বরিয়ার অ্যাপার্টমেন্টের বাইরে চিৎকার-চেঁচামেচি করেছিলেন সাল্লু মিয়া। ঐশ্বরিয়ার দরজা ধাক্কাতেও অনেকে তাকে দেখেছিলেন বলেও দাবি।

 

সালমান ছাড়া অজয়কে নিয়েও কম বিব্রত হননি ঐশ্বরিয়া। তখন সালমান অতীত। অভিষেকের সঙ্গে চুটিয়ে ঘরকন্না করছেন। একটি অনুষ্ঠানে অভিষেকের সামনেই ঐশ্বরিয়াকে এমনভাবে জড়িয়ে ধরেন অজয়, যা নিয়েও কম বিতর্ক হয়নি। পেজ থ্রি’র পাতায় ওই ছবি দেখে অনেকেরই মনে হয়েছিল, ঐশ্বরিয়াকে চুমু খাচ্ছেন অজয়।

 

অমিতাভের সঙ্গে তিনি নাকি ‘ডেটিং’ করছেন। কানাঘুষায় এমনও শুনেছেন ঐশ্বরিয়া। একটি বলিউডি ইভেন্টে দু’জনের ছবি ভাইরালও হয়েছিল।

 

বিতর্ক তো খ্যাতনামীদের জীবনের অঙ্গ। অনেকে এমন কথা বলতেই পারেন। তবে অস্বস্তিতে পড়লে কার ভাল লাগে বলুন তো? ফের অস্বস্তিতে পড়েন ঐশ্বরিয়া। এবার অবশ্য প্রতিবেশী দেশের সাবেক প্রেসিডেন্টকে জড়িয়ে।

 

পাকিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি নাকি ঐশ্বরিয়াকে ১০ কোটি রুপি দিয়েছিলেন। ২০০৮ সালে পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন তার বাসভবনে একটি ব্যক্তিগত অনুষ্ঠানে পারর্ফম করার জন্যই ওই টাকা নিয়েছিলেন ঐশ্বরিয়া। এ দাবি নাকি করেছেন পাকিস্তানের রাজনৈতিক বিশ্লেষক শাহিদ মাসুদ।

 

ওই ‘ঘটনা’র সময় পাকিস্তানের একটি টেলিভিশন চ্যানেলে লাইভ চ্যাট শো করতেন মাসুদ। ভারতের একটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত রিপোর্টে দাবি, ওই চ্যাট শোয়ে এ কথা বলেছেন তিনি। জারদারির একটি ঘনিষ্ঠ সূত্রের মাধ্যমে তিনি জানতে পারেন যে পাক প্রেসিডেন্টের বাসভবনের অনুষ্ঠানে এক রাতে নৃত্য পরিবেশনা করেন ঐশ্বরিয়া। সে জন্যই নাকি তাকে ১০ কোটি রুপি দেন জারদারি।

 

সত্যি কি মিথ্যা তা জানা নেই। তবে মাসুদের দাবি ঘিরে পাকিস্তানের অনেকেই হতবাক। শোনা যায়, গোটা বিতর্কে মুখ না খুললেও তাতে আহত হয়েছেন ঐশ্বরিয়া।

 

নিজের দাবি সত্ত্বেও এ নিয়ে কোনও প্রমাণ পেশ করতে পারেননি মাসুদ। ওই ‘তথাকথিত অনুষ্ঠান’-এর কোনও ভিডিও ফুটেজ বা প্রত্যক্ষদর্শীর নাম করতে পারেননি তিনি। তবে চ্যাট শো-এ মাসুদ যে এ কথা বলেছেন, তার ভিডিও নিজেদের জিম্মায় রয়েছে বলে দাবি একটি ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের।

সূত্র: আনন্দবাজার

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com