বিশ্বের সবচেয়ে বড় মিঠা পানির মাছ ধরা পড়লো মেকং নদীতে

কম্বোডিয়ার মেকং নদীতে ধরা পড়লো ৩০০ কেজি ওজনের একটি স্টিংরে প্রজাতির মাছ। বিশ্বে এটিই সবচেয়ে বড় স্বাদু বা মিঠা পানির মাছ বলে দাবি বিজ্ঞানীদের।

 

এর আগে ২০০৫ সালে থাইল্যান্ডে ধরা পড়ে ২৯৩ কেজি ওজনের একটি বৃহদাকার ক্যাটফিশ। কিন্তু এবারের স্টিংরে সেই অতীত রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। যদিও বিশ্বের সবচেয়ে বড় মিঠা পানির মাছের কোনো সরকারি রেকর্ড বা ডাটাবেস নেই।

মেকং জীববৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ একটি নদী। কিন্তু অতিরিক্ত মাছ ধরা, বাঁধ ও দূষণ নদীটির ইকোসিস্টেমকে ভেঙে ফেলেছে। তিব্বত মালভূমি থেকে চীন, মিয়ানমার, থাইল্যান্ড, লাওস, কম্বোডিয়া ও ভিয়েতনামের ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয় এই নদী।

 

ইউএসএইড পরিচালিত ‘ওয়ানডারস অব দ্য মেকং’ সংরক্ষণ প্রকল্পের প্রধান জীববিজ্ঞানী জেব হোগান এই মাছের সন্ধান পাওয়াকে দারুণ খবর বলে মনে করছেন।

 

এই মাছটি খুঁজে পাওয়া এবং নথিভুক্ত করা অসাধারণ ব্যাপার উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘কারণ এটি মেকং-এ ঘটেছে। এমন একটি নদী যা বর্তমানে অনেক চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন’।

 

তিনি আরও বলেন, ‘ছয়টি মহাদেশের নদী, হ্রদে বৃহদাকার মাছ নিয়ে ২০ বছরের গবেষণায় পাওয়া এটিই সবচেয়ে বড় স্বাদু পানির মাছ। আর এই মাছ এখানে পাওয়ার অর্থ হচ্ছে মেকং নদীর এই অংশ এখনও জীববৈচিত্র্যের জন্য উপযোগী।’

 

গত ১৩ জুন কোহ প্রিয়া দ্বীপের এক স্থানীয় জেলে এই স্টিংরে প্রজাতির মাছটি ধরার কথা গবেষকদেরকে জানান। মাছটি ৩ দশমিক ৯৮ মিটার লম্বা ও ২ দশমিক ২ মিটার চওড়া। স্থানীয় খেমার ভাষায় মাছটিকে বলা হচ্ছে ‘বোরামি’; যার অর্থ পূর্ণ চাঁদ। এই স্ট্রিংরে একটি বিরল এবং বিপন্ন প্রজাতির মাছ। এ নিয়ে গত মে মাস থেকে দুটো স্টিংরে প্রজাতির মাছ পরীক্ষা করে দেখার সুযোগ পেলেন গবেষকরা।  সূত্র: বিবিসি

 

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» ।। আজ তুমি আমি ভিন্ন গ্রহের বাসিন্দা এক।।।

» পঙ্কজ উদাস আর নেই

» স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এগিয়ে চলছে বাংলাদেশ-ধর্মমন্ত্রী

» দেশের ‘সবচেয়ে দ্রুতগতির মোবাইল নেটওয়ার্ক’-এর স্বীকৃতি পেয়েছে বাংলালিংক

» মঙ্গলবার গ্যাস থাকবে না রাজধানীর যেসব এলাকায়

» মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক আসামি গ্রেফতার

» বাইডেনকে হারাতে পারবেন না ট্রাম্প, বললেন নিকি হ্যালি

» বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যুবককে হত্যার অভিযোগ

» গণধর্ষণ মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি ২১ বছর পর গ্রেফতার

» কারাগারে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত কয়েদির মৃত্যু

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ,বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি। (দপ্তর সম্পাদক)  
উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা
 সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ,
ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন,
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু,
নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল :০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

বিশ্বের সবচেয়ে বড় মিঠা পানির মাছ ধরা পড়লো মেকং নদীতে

কম্বোডিয়ার মেকং নদীতে ধরা পড়লো ৩০০ কেজি ওজনের একটি স্টিংরে প্রজাতির মাছ। বিশ্বে এটিই সবচেয়ে বড় স্বাদু বা মিঠা পানির মাছ বলে দাবি বিজ্ঞানীদের।

 

এর আগে ২০০৫ সালে থাইল্যান্ডে ধরা পড়ে ২৯৩ কেজি ওজনের একটি বৃহদাকার ক্যাটফিশ। কিন্তু এবারের স্টিংরে সেই অতীত রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। যদিও বিশ্বের সবচেয়ে বড় মিঠা পানির মাছের কোনো সরকারি রেকর্ড বা ডাটাবেস নেই।

মেকং জীববৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ একটি নদী। কিন্তু অতিরিক্ত মাছ ধরা, বাঁধ ও দূষণ নদীটির ইকোসিস্টেমকে ভেঙে ফেলেছে। তিব্বত মালভূমি থেকে চীন, মিয়ানমার, থাইল্যান্ড, লাওস, কম্বোডিয়া ও ভিয়েতনামের ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয় এই নদী।

 

ইউএসএইড পরিচালিত ‘ওয়ানডারস অব দ্য মেকং’ সংরক্ষণ প্রকল্পের প্রধান জীববিজ্ঞানী জেব হোগান এই মাছের সন্ধান পাওয়াকে দারুণ খবর বলে মনে করছেন।

 

এই মাছটি খুঁজে পাওয়া এবং নথিভুক্ত করা অসাধারণ ব্যাপার উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘কারণ এটি মেকং-এ ঘটেছে। এমন একটি নদী যা বর্তমানে অনেক চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন’।

 

তিনি আরও বলেন, ‘ছয়টি মহাদেশের নদী, হ্রদে বৃহদাকার মাছ নিয়ে ২০ বছরের গবেষণায় পাওয়া এটিই সবচেয়ে বড় স্বাদু পানির মাছ। আর এই মাছ এখানে পাওয়ার অর্থ হচ্ছে মেকং নদীর এই অংশ এখনও জীববৈচিত্র্যের জন্য উপযোগী।’

 

গত ১৩ জুন কোহ প্রিয়া দ্বীপের এক স্থানীয় জেলে এই স্টিংরে প্রজাতির মাছটি ধরার কথা গবেষকদেরকে জানান। মাছটি ৩ দশমিক ৯৮ মিটার লম্বা ও ২ দশমিক ২ মিটার চওড়া। স্থানীয় খেমার ভাষায় মাছটিকে বলা হচ্ছে ‘বোরামি’; যার অর্থ পূর্ণ চাঁদ। এই স্ট্রিংরে একটি বিরল এবং বিপন্ন প্রজাতির মাছ। এ নিয়ে গত মে মাস থেকে দুটো স্টিংরে প্রজাতির মাছ পরীক্ষা করে দেখার সুযোগ পেলেন গবেষকরা।  সূত্র: বিবিসি

 

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ,বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি। (দপ্তর সম্পাদক)  
উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা
 সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ,
ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন,
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু,
নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল :০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com