পিলখানায় হত্যাকাণ্ড সুদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্র: মির্জা ফখরুল

রাজধানীর পিলখানায় ২০০৯ সালের বিডিআর বিদ্রোহে ৫৭ সেনা কর্মকর্তার নিহত হওয়ার ঘটনাকে শুধু বিদ্রোহ হিসেবে মানতে নারাজ বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছন, এর পেছনে শুধু বিদ্রোহ ছিল না। একটা সুদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্র ছিল।’ সেনাবাহিনীর মনোবলটা ভেঙে দেয়াই ওই হত্যাকাণ্ডের মূল কারণ ছিল বলে মনে করেন তিনি।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর বনানী সামরিক কবরস্থানে পিলখানা শহীদ সেনা কর্মকর্তাদের কবরে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

 

ফখরুল বলেন, ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধেও কিন্তু আমরা একদিনে এত কর্মকর্তা হারাইনি। পিলখানার এই দুর্ঘটনার মাধ্যমে আমাদের জাতীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা সম্পূর্ণ ভেঙে ফেলা হয়েছিল।

 

১৩ বছরেও এই ঘটনার নেপথ্যে কারা ছিলেন তা প্রকাশ না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করে এর তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, এর পেছনে কারা ছিল, কেন এই ঘটনা ঘটেছিল, আজকে দুর্ভাগ্য আমাদের তদন্ত করে তা আজ ১৩ বছরেও বের করা হয়নি।

 

তিনি আরও বলেন, সেটাকে (বিডিআর) ভেঙে দিয়ে নতুন প্রতিষ্ঠান (বিজিবি) করা হয়েছে। হাজার হাজার বিডিআর সদস্যদের বিচার করা হয়েছে। এর পেছনের শক্তি কারা সেই সুষ্ঠু তদন্ত রিপোর্ট এখনো আমরা পাই নাই। সেনাবাহিনী যে তদন্ত করেছিল তার রিপোর্ট প্রকাশ করা হয় নাই।

 

মহাসচিবের সঙ্গে বিএনপি দলীয় নেতৃবৃন্দের মধ্যে- ভাইস-চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন বীর বিক্রম, এয়ার ভাইস মার্শাল আলতাফ হোসেন চৌধুরী, মেজর জেনারেল (অব.) ফজলে এলাহি আকবর, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) হাসান নাসির, কর্নেল (অব.) কামরুজ্জামান, মেজর (অব.) এম এম হাসান, মেজর (অব.) কোহিনুর আলম নুর, মেজর (অব.) আজিজ রেজা, শামীমুর রহমান শামীম, চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান ছিলেন।

 

এছাড়াও জোট নেতাদের মধ্যে কল্যাণ পার্টির চেয়রাম্যান মেজর জেনারেল (অব. সৈয়দ ইব্রাহিম, এনপিপি চেয়ারম্যান ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, জাতীয় পার্টির মহাসচিব আহসান হাবীব লিংকন, ডেমোক্রেটিক লীগ সাধারণ সম্পাদক সাইফ উদ্দিন মনি প্রমুখ ছিলেন।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» বন্যা প্রাদুর্ভাব চলে গেলেই শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা: শিক্ষামন্ত্রী

» আ.লীগ স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ডের সভা রোববার

» রোম্যান্টিক লুক ছেড়ে রোমহর্ষক চেহারায় শাহরুখ

» শেখ হাসিনার হাত ধরে আমরা নিজের পায়ে দাঁড়িয়েছি: শামীম ওসমান

» শক্তিশালী ভূমিকম্পে কাঁপল ইরান

» হোমনায় পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে পুলিশের আনন্দ র‍্যালি অনুষ্ঠিত

» পাঁচবিবিতে কোরবানীর জন্য প্রস্তুুত ৬৩ হাজার পশু

» সুনামগঞ্জ-সিলেটসহ বানভাসী মানুষের সাহায্যের জন্য বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ, নারায়ণগঞ্জ জেলা অর্থ সংগ্রহ কার্যক্রম

» ‘পাসুরি’ গানের তালে নাচলেন রাকুল (ভিডিও)

» রাঙামাটির দুর্গম এলাকায় দুই গ্রুপের গোলাগুলিতে ১জন নিহত

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

পিলখানায় হত্যাকাণ্ড সুদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্র: মির্জা ফখরুল

রাজধানীর পিলখানায় ২০০৯ সালের বিডিআর বিদ্রোহে ৫৭ সেনা কর্মকর্তার নিহত হওয়ার ঘটনাকে শুধু বিদ্রোহ হিসেবে মানতে নারাজ বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছন, এর পেছনে শুধু বিদ্রোহ ছিল না। একটা সুদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্র ছিল।’ সেনাবাহিনীর মনোবলটা ভেঙে দেয়াই ওই হত্যাকাণ্ডের মূল কারণ ছিল বলে মনে করেন তিনি।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর বনানী সামরিক কবরস্থানে পিলখানা শহীদ সেনা কর্মকর্তাদের কবরে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

 

ফখরুল বলেন, ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধেও কিন্তু আমরা একদিনে এত কর্মকর্তা হারাইনি। পিলখানার এই দুর্ঘটনার মাধ্যমে আমাদের জাতীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা সম্পূর্ণ ভেঙে ফেলা হয়েছিল।

 

১৩ বছরেও এই ঘটনার নেপথ্যে কারা ছিলেন তা প্রকাশ না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করে এর তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, এর পেছনে কারা ছিল, কেন এই ঘটনা ঘটেছিল, আজকে দুর্ভাগ্য আমাদের তদন্ত করে তা আজ ১৩ বছরেও বের করা হয়নি।

 

তিনি আরও বলেন, সেটাকে (বিডিআর) ভেঙে দিয়ে নতুন প্রতিষ্ঠান (বিজিবি) করা হয়েছে। হাজার হাজার বিডিআর সদস্যদের বিচার করা হয়েছে। এর পেছনের শক্তি কারা সেই সুষ্ঠু তদন্ত রিপোর্ট এখনো আমরা পাই নাই। সেনাবাহিনী যে তদন্ত করেছিল তার রিপোর্ট প্রকাশ করা হয় নাই।

 

মহাসচিবের সঙ্গে বিএনপি দলীয় নেতৃবৃন্দের মধ্যে- ভাইস-চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন বীর বিক্রম, এয়ার ভাইস মার্শাল আলতাফ হোসেন চৌধুরী, মেজর জেনারেল (অব.) ফজলে এলাহি আকবর, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) হাসান নাসির, কর্নেল (অব.) কামরুজ্জামান, মেজর (অব.) এম এম হাসান, মেজর (অব.) কোহিনুর আলম নুর, মেজর (অব.) আজিজ রেজা, শামীমুর রহমান শামীম, চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান ছিলেন।

 

এছাড়াও জোট নেতাদের মধ্যে কল্যাণ পার্টির চেয়রাম্যান মেজর জেনারেল (অব. সৈয়দ ইব্রাহিম, এনপিপি চেয়ারম্যান ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, জাতীয় পার্টির মহাসচিব আহসান হাবীব লিংকন, ডেমোক্রেটিক লীগ সাধারণ সম্পাদক সাইফ উদ্দিন মনি প্রমুখ ছিলেন।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com