নারীদের দায়িত্ব পালনে সহায়ক হবে হয়রানিমুক্ত কর্মপরিবেশে

ডিএমপিতে ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করায় পুলিশে কর্মরত সকল নারী সদস্যের হয়রানিমুক্ত নিরাপদ কর্মপরিবেশে তাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালনে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে বিশ্বাস করেন ডিএমপি কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম।

 

শনিবার ডিএমপিতে নারী সদস্যদের নিরাপদ কর্মপরিবেশ বজায় রাখার লক্ষ্যে প্রণীত ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’এর প্রকাশনার মুখবন্ধে একথা বলেন তিনি।

 

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ঢাকা মহানগর এলাকার সহিংসতার শিকার নারী ও শিশুদের প্রতি সংবেদনশীলতা ও তাদের অধিকারকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে নারী ও শিশুর প্রতি সকল প্রকার সহিংসতা প্রতিরোধে নিরলস কাজ করে যাচ্ছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ। বাংলাদেশ পুলিশের সর্ববৃহৎ এই ইউনিটে বর্তমানে দুই হাজারের বেশি নারী সদস্য কর্মরত।

 

মোহা. শফিকুল ইসলাম বলেন, জেন্ডার সংবেদনশীলতাকে গুরুত্ব দিয়ে তাদের জন্য নিরাপদ ও অধিকতর সহনশীল কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ বদ্ধপরিকর। সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে দায়ের করা রিট পিটিশন ৫৯১৬/২০০৮-এর প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের সুনির্দিষ্ট নির্দেশনার আলোকে পুলিশ সদরদপ্তর কর্তৃক প্রদত্ত গাইডলাইনস অনুসরণ করে ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করা হয়েছে।

 

তিনি আরও বলেন, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল বিভাগে নিরাপদ কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি ও তা প্রতিরোধকল্পে এই নীতিমালা ও কর্মপন্থা প্রকাশনাকে আমি স্বাগত জানাই। কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’ ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে কর্মরত সকল নারী সদস্যের হয়রানিমুক্ত নিরাপদ কর্মপরিবেশে তাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করার ক্ষেত্রে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে আমার বিশ্বাস।

 

‘যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’ এর প্রকাশনায় ছিল ডিএমপির উইমেন সাপোর্ট এন্ড ইনভেস্টিগেশন বিভাগ।

 

সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে দায়েরকৃত রিট পিটিশন ৫৯১৬/২০০৮ এর প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের সুনির্দিষ্ট নির্দেশনার আলোকে পুলিশ সদর দপ্তরের গাইডলাইনস্ অনুসরণ করে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল বিভাগে নারীদের নিরাপদ কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে এই নীতিমালা ও কর্মপন্থা প্রণীত হয়।

 

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম এর নির্দেশনায়, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (এ্যাডমিন) মীর রেজাউল আলম এর সার্বিক তত্ত্বাবধান ও উইমেন সাপোর্ট এন্ড ইনভেস্টিগেশন বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার হামিদা পারভীন এর পরিকল্পনায় ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করা হয়েছে। সূএ:বাংলাদেশ জার্নাল

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» হাওরে কৃষকদের বোরো ধানের উপযুক্ত মূল্য নির্ধারণ করা হবে: কৃষিমন্ত্রী

» বাসচাপায় সিএনজি যাত্রী নিহত

» ‌‌‘বিনা কারণে কারাগার এখন বিএনপি নেতাকর্মীদের স্থায়ী ঠিকানা’

» রাজধানীর শিশু হাসপাতালের আগুন নিয়ন্ত্রণে

» বিএনপির নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে কোনো মামলা রাজনৈতিক নয়: প্রধানমন্ত্রী

» রাজধানীর শিশু হাসপাতালের ভবনে আগুন

» শনিবার ২ ঘণ্টা গ্যাস থাকবে না যেসব এলাকায়

» মাদক বিক্রি ও সেবন করার অপরাধে ১০ জন গ্রেফতার

» ‘জীবনে অনেক ভুল করেছি’—হঠাৎ কী হলো পরিণীতির?

» ‘মুস্তাফিজকে কেন পুরো আইপিএল খেলতে দিচ্ছে না বাংলাদেশ’

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ,বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি। (দপ্তর সম্পাদক)  
উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা
 সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ,
ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন,
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু,
নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল :০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

নারীদের দায়িত্ব পালনে সহায়ক হবে হয়রানিমুক্ত কর্মপরিবেশে

ডিএমপিতে ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করায় পুলিশে কর্মরত সকল নারী সদস্যের হয়রানিমুক্ত নিরাপদ কর্মপরিবেশে তাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালনে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে বিশ্বাস করেন ডিএমপি কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম।

 

শনিবার ডিএমপিতে নারী সদস্যদের নিরাপদ কর্মপরিবেশ বজায় রাখার লক্ষ্যে প্রণীত ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’এর প্রকাশনার মুখবন্ধে একথা বলেন তিনি।

 

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ঢাকা মহানগর এলাকার সহিংসতার শিকার নারী ও শিশুদের প্রতি সংবেদনশীলতা ও তাদের অধিকারকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে নারী ও শিশুর প্রতি সকল প্রকার সহিংসতা প্রতিরোধে নিরলস কাজ করে যাচ্ছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ। বাংলাদেশ পুলিশের সর্ববৃহৎ এই ইউনিটে বর্তমানে দুই হাজারের বেশি নারী সদস্য কর্মরত।

 

মোহা. শফিকুল ইসলাম বলেন, জেন্ডার সংবেদনশীলতাকে গুরুত্ব দিয়ে তাদের জন্য নিরাপদ ও অধিকতর সহনশীল কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ বদ্ধপরিকর। সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে দায়ের করা রিট পিটিশন ৫৯১৬/২০০৮-এর প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের সুনির্দিষ্ট নির্দেশনার আলোকে পুলিশ সদরদপ্তর কর্তৃক প্রদত্ত গাইডলাইনস অনুসরণ করে ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করা হয়েছে।

 

তিনি আরও বলেন, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল বিভাগে নিরাপদ কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি ও তা প্রতিরোধকল্পে এই নীতিমালা ও কর্মপন্থা প্রকাশনাকে আমি স্বাগত জানাই। কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’ ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে কর্মরত সকল নারী সদস্যের হয়রানিমুক্ত নিরাপদ কর্মপরিবেশে তাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করার ক্ষেত্রে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে আমার বিশ্বাস।

 

‘যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’ এর প্রকাশনায় ছিল ডিএমপির উইমেন সাপোর্ট এন্ড ইনভেস্টিগেশন বিভাগ।

 

সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে দায়েরকৃত রিট পিটিশন ৫৯১৬/২০০৮ এর প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের সুনির্দিষ্ট নির্দেশনার আলোকে পুলিশ সদর দপ্তরের গাইডলাইনস্ অনুসরণ করে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল বিভাগে নারীদের নিরাপদ কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করতে এই নীতিমালা ও কর্মপন্থা প্রণীত হয়।

 

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম এর নির্দেশনায়, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (এ্যাডমিন) মীর রেজাউল আলম এর সার্বিক তত্ত্বাবধান ও উইমেন সাপোর্ট এন্ড ইনভেস্টিগেশন বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার হামিদা পারভীন এর পরিকল্পনায় ‘কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি ও যৌন নির্যাতন বন্ধে নীতিমালা ও কর্মপন্থা ২০২১’প্রণয়ন করা হয়েছে। সূএ:বাংলাদেশ জার্নাল

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ,বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি। (দপ্তর সম্পাদক)  
উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা
 সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ,
ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন,
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু,
নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল :০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com