15 August shok banner

একক গ্রাহক ঋণসীমা কমাল কেন্দ্রীয় ব্যাংক

ব্যাংকের একক গ্রাহকের ঋণসীমা কমিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। বর্তমানে একটি ব্যাংক ফান্ডেড ১৫ শতাংশ ও নন-ফান্ডেড ২০ শতাংশ মিলিয়ে একজন গ্রাহককে মোট মূলধনের সর্বোচ্চ ৩৫ শতাংশ পর্যন্ত ঋণ দিতে পারে। এ সীমা পরিবর্তন করে ২৫ শতাংশ নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে জ্বালানি খাতে ফান্ডেড ও নন ফান্ডেড মিলিয়ে মোট মূলধনের ৫০ শতাংশ ঋণ দিতে পারবে ব্যাংকগুলো। 

আগামী ১ এপ্রিল থেকে এসব নির্দেশনা কার্যকর হবে। গতকাল রবিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে এ-সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করা হয়েছে। সার্কুলারে  আরও বলা হয়েছে, যেকোনো সময়ে একক ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠান কিংবা গ্রুপকে দেয়া ফান্ডেড ও নন-ফান্ডেড ঋণ সুবিধা আসল অংকের মোট পরিমাণ কোনোভাবেই সেই ব্যাংকের মূলধনের ২৫ শতাংশের বেশি হবে না। আর একক কোনো ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠান বা গ্রুপকে দেয়া ফান্ডেড ঋণ সুবিধা আসল অংকের মোট পরিমাণ আগের মতোই ব্যাংকের মোট মূলধনের ১৫ শতাংশ অপরিবর্তিত রয়েছে।

প্রসঙ্গত, ফান্ডেড ঋণ নগদ অর্থে এবং নন ফান্ডেড ঋণ লেটার অব ক্রেডিট (এলসি) হিসেবে দেওয়া হয়।

সার্কুলার অনুয়ায়ী, যেসব ব্যাংকের খেলাপি ঋণ ৩ শতাংশের নিচে তারা মোট মূলধনের সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে। খেলাপি ঋণ ৫ শতাংশের কম হলে ৪৬ শতাংশ বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে। খেলাপি ঋণ ১০ শতাংশের নিচে হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৪২ শতাংশ। খেলাপি ঋণ ১৫ শতাংশের কম হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩৮ ভাগ। খেলাপি ঋণ ২০ শতাংশের কম হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩৪ শতাংশ। খেলাপি ঋণ ২০ শতাংশ বা তার বেশি হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩০ শতাংশ।

 

ব্যাংকিং খাতে স্থিতিশীলতা জোরদার এবং ব্যাংকের ঋণ ঝুঁকি ব্যবস্থাপনা শক্তিশালীকরণের উদ্দেশে প্রজ্ঞাপনটি জারি করা হয়েছে। ব্যাংকিং কোম্পানি আইন অনুসারে নতুন নির্দেশনা জারি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন কর্মকর্তা।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» পানির নিচে তলিয়ে গেছে বিশ্বের সবচেয়ে ‘খারাপ শহর’

» নারীদের সুইমিং পুলে পুরুষ দর্শনার্থীদের প্রবেশ করা নিয়ে হাতাহাতি ও ফাঁকা গুলি আটক ৪

» পণ্যবাহী গাড়ি ডাকাতির সময় ছয় ডাকাত আটক

» তারেক মাসুদের মৃত্যুবার্ষিকী আজ

» চাটুকাররাই একালের মোশতাক

» গুচ্ছভুক্ত বি-ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা আজ

» বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিক্রি ও সেবনের অপরাধে ৭৩জন আটক

» শনিবার দেশের কোথায় কখন লোডশেডিং

» অতিরিক্ত ঘাম হয় কেন?

» ক্যারিবীয় কোচের সমালোচনায় যা বললেন রাসেল

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

একক গ্রাহক ঋণসীমা কমাল কেন্দ্রীয় ব্যাংক

ব্যাংকের একক গ্রাহকের ঋণসীমা কমিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। বর্তমানে একটি ব্যাংক ফান্ডেড ১৫ শতাংশ ও নন-ফান্ডেড ২০ শতাংশ মিলিয়ে একজন গ্রাহককে মোট মূলধনের সর্বোচ্চ ৩৫ শতাংশ পর্যন্ত ঋণ দিতে পারে। এ সীমা পরিবর্তন করে ২৫ শতাংশ নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে জ্বালানি খাতে ফান্ডেড ও নন ফান্ডেড মিলিয়ে মোট মূলধনের ৫০ শতাংশ ঋণ দিতে পারবে ব্যাংকগুলো। 

আগামী ১ এপ্রিল থেকে এসব নির্দেশনা কার্যকর হবে। গতকাল রবিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে এ-সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করা হয়েছে। সার্কুলারে  আরও বলা হয়েছে, যেকোনো সময়ে একক ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠান কিংবা গ্রুপকে দেয়া ফান্ডেড ও নন-ফান্ডেড ঋণ সুবিধা আসল অংকের মোট পরিমাণ কোনোভাবেই সেই ব্যাংকের মূলধনের ২৫ শতাংশের বেশি হবে না। আর একক কোনো ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠান বা গ্রুপকে দেয়া ফান্ডেড ঋণ সুবিধা আসল অংকের মোট পরিমাণ আগের মতোই ব্যাংকের মোট মূলধনের ১৫ শতাংশ অপরিবর্তিত রয়েছে।

প্রসঙ্গত, ফান্ডেড ঋণ নগদ অর্থে এবং নন ফান্ডেড ঋণ লেটার অব ক্রেডিট (এলসি) হিসেবে দেওয়া হয়।

সার্কুলার অনুয়ায়ী, যেসব ব্যাংকের খেলাপি ঋণ ৩ শতাংশের নিচে তারা মোট মূলধনের সর্বোচ্চ ৫০ শতাংশ বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে। খেলাপি ঋণ ৫ শতাংশের কম হলে ৪৬ শতাংশ বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে। খেলাপি ঋণ ১০ শতাংশের নিচে হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৪২ শতাংশ। খেলাপি ঋণ ১৫ শতাংশের কম হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩৮ ভাগ। খেলাপি ঋণ ২০ শতাংশের কম হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩৪ শতাংশ। খেলাপি ঋণ ২০ শতাংশ বা তার বেশি হলে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে পারবে ৩০ শতাংশ।

 

ব্যাংকিং খাতে স্থিতিশীলতা জোরদার এবং ব্যাংকের ঋণ ঝুঁকি ব্যবস্থাপনা শক্তিশালীকরণের উদ্দেশে প্রজ্ঞাপনটি জারি করা হয়েছে। ব্যাংকিং কোম্পানি আইন অনুসারে নতুন নির্দেশনা জারি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন কর্মকর্তা।

Facebook Comments Box

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : [email protected]

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com