স্তন্যদায়ী মায়েদের নিপলে ব্যথা হতেই পারে; জেনে নিন কারণ ও ঘরোয়া উপশম!.

স্তন্যদায়ী মায়েদের নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা হওয়া খুব স্বাভাবিক এবং সাধারণ। ব্যথা সহ্য না করে বা অগ্রাহ্য না করে যদি একটু কারণগুলো জেনে রাখা যায়, তা হলে মায়েদের এই কষ্টটা আর ভোগ করতে হয় না। শুধু কারণ নয়, এর সাথে সহজ ঘরোয়া প্রতিকার এবং প্রতিরোধের উপায় জানা থাকলে তো সোনায় সোহাগা। নতুন মায়েদের কথা মাথায় রেখেই আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদন। নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা কেন হয়, ঘরোয়া উপায়ে কীভাবে আরাম পাবেন বা কী করলে আটকাতে পারবেন এই ব্যথা হওয়া; সবকিছু নিয়ে বিশদে আলোচনা রইল এইখানেই। আজ না হয় নিজের আরামের খাতিরেই পড়ে ফেলুন। (Nipple Pain While Breastfeeding; Causes and Remedies, How to Care for Your Nipples While You’re Breastfeeding)

 

নিপলে ব্যথা কেন হয়? (What Causes Nipple Pain)

যেসব মায়েরা বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ান, তাদের নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা হওয়াটা অস্বাভাবিক কিছু নয়। আর, ব্যথা হলেও মায়েরা এটা স্বাভাবিক ধরে নিয়ে সহ্য করেন। এই ভাবনাটি কিন্তু সম্পূর্ণ ঠিক নয়। শুধু ল্যাচিং-এ সমস্যার কারণে নয়, নিপলে ব্যথা হতে পারে আরও কিছু কারণে। (Pain During Breastfeeding: Causes & Remedies) যেমন,

  • নতুন নতুন ব্রেস্টফিড করালে: নতুন মায়েরা অর্থাৎ যারা প্রথমবার মা হয়েছেন, তাদের ক্ষেত্রে এটা খুবই স্বাভাবিক। মা এবং বাচ্চা দু’জনেরই অভ্যেস হতে সময় লাগে কিছুটা। তাই বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ানো শুরু করার প্রথম এক-দুই সপ্তাহ নিপলে হাল্কা ব্যথা হতে পারে বা নিপল স্পর্শকাতর হয়ে যেতে পারে। (What Causes Sore Nipples)

 

  • ল্যাচিং-এ সমস্যা: বাচ্চা যদি ঠিকভাবে ল্যাচ করতে না পারে, তা হলে সে দুধ খাওয়ার চেষ্টা করতে গিয়ে নিপলে কামড়ে দিতে পারে বা ভুল পজিশনেই ল্যাচ করার চেষ্টা করে। এরিওলা মুখে না নিয়ে সে শুধু কামড়ে যায় নিপলই। এর থেকেও মায়ের নিপলে ব্যথা হয়। বাড়াবাড়ি হলে নিপল ফেটে যায়, র‍্যাশ বা ব্লিসটারও তৈরি হয়।,

 

  • বেশি জোরে ল্যাচ: কিছু খুদে আছে, যাদের ধৈর্য একটু কম। খিদের চোটে সে ছোট্ট শরীরের সবটুকু শক্তি দিয়ে দুধ টানতে চেষ্টা করে। নিপল অত্যন্ত নরম জায়গা হওয়ায় বাচ্চার ওই জোরে ল্যাচ করাও আঘাত দেয় একে। শুধু ব্যথা নয়, ক্রমাগত এরকম হতে থাকলে নিপল ফেটে রক্তও বেরিয়ে আসে।l

 

  • ভুল সাইজের নার্সিং ব্রা: সঠিক সাইজের নার্সিং ব্রা কিনুন। সঠিক ব্রা না পরলে তা নিপলে বেশি চাপ ফেলতে পারে এবং নিপলে ব্যথা সৃষ্টি করতে পারে।,

 

  • বন্ধ হয়ে যাওয়া মিল্ক ডাকট বা দুধ গ্রন্থি: বাচ্চা অনেকক্ষণ দুধ না খেলে, দুধ জমে গিয়ে ব্রেস্ট পাথরের মতো শক্ত হয়ে যায় এবং ব্যথা করে। এছাড়া, মিল্ক ডাকটে যদি কোনও ভাবে দুধ শক্ত হয়ে জমে গিয়ে তা বন্ধ হয়ে যায়; তা থেকেও নিপলে ব্যথার উদ্রেক হয়।

 

  • পাম্প করার যন্ত্র:আপনি যদি ব্রেস্ট পাম্প ব্যবহার করেন, তা হলে পাম্প করার সময় সেটা আরামদায়ক ভাবে বসছে কি না বা পাম্পিং-এর সময় আপনার অস্বস্তি হচ্ছে কি না; খেয়াল রাখুন সেদিকেও। পাম্পিং-এর স্পিড বেশি করলে নিপলে ব্যথা হওয়া খুব স্বাভাবিক। তাই, ব্রেস্ট পাম্প কেনার আগে দেখে নিন আপনার জন্য কোনটা আরামদায়ক হবে।.

 

  • ম্যাসটাইটিস:ম্যাসটাইটিস হলে কিন্তু বেশ কষ্টদায়ক এবং সত্বর চিকিৎসা প্রয়োজন। বাচ্চার যখন মায়ের দুধ খায়, তখন তার মুখ থেকে কোনও জীবাণু ফাটা নিপলের চামড়া দিয়ে মিল্ক ডাকট বা দুধ গ্রন্থিতে ঢুকে গেলে নিপলে মারাত্মক ব্যথা ও ইনফেকশন হতে পারে। নিপল ফুলে গিয়ে মায়ের জ্বরও আসতে পারে।

 

  • থ্রাস: এইটি একধরনের ইস্ট ইনফেকশন। এক্ষেত্রে, নিপলে সাদা সাদা ছোপ দাগ দেখা দেয়। একইরকম দাগ হয় বাচ্চার মুখেও। এই ইনফেকশন হলে বাচ্চাকে দুধ খাওয়ানোর সময় নিপল জ্বালা হওয়ার মতো ব্যথা করে। লাল, চকচকে ভাব চলে আসে এবং নিপলের চামড়াও উঠতে থাকে।

 

নিপলে ব্যথা সারাতে বিশেষ কিছু কার্যকরী টিপস
(Tips for Treating Nipple Pain; Nipple Pain Remedies & Preventative Measures)

#1. সেঁক দিন: পরিষ্কার একটা কাপড় হালকা গরম জলে ভিজিয়ে নিয়ে অতিরিক্ত জল নিংড়ে ফেলে দিন। এবার ওই কাপড়টা সরাসরি নিপলের ওপর ফেলে রাখুন কিছুক্ষণ। কাপড়ের গরম ভাবটা চলে গেলে আবার জলে ডুবিয়ে নিন। এরকম করুন বেশ কিছুক্ষণ। (Sore Nipples and Breastfeeding; Treatment and Prevention)

#2. কাজে আসবে নুন জল: নুন মেশানো জল বা স্যালাইন ওয়াটার দিয়ে ধুয়ে নিন নিপল। বাচ্চাকে খাওয়ানোর পরে এটা করুন। এছাড়াও, নুন জলে তুলো ভিজিয়ে নিপলের ওপর কিছুক্ষণ ধরে থাকলেও আরাম পাবেন। (How to Treat Sore Nipples) এতে ইনফেকশন হওয়ার আশঙ্কাও কমে আবার নিপলের নরম চামড়ায় আঘাত লাগলে তা জলদি সেরেও যায়।

#3. ঠান্ডাভাবে আরাম পাবেন: ঠান্ডা টি ব্যাগ, জেল প্যাড আরাম দিতে পারে। যদি নিপলে খুব ব্যথা হয়ে থাকে; তা হলে বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে কিছু সময় বরফের সেঁক দিন। এতে আপনি আরামও পাবেন আবার বাচ্চা খাওয়ার সময় অতটা ব্যথা হবে না। (Nipple Pain Remedies)

 

 

#4. দিক বদলে খাওয়ান:সবসময় একদিক থেকেই না খাইয়ে বাচ্চাকে খাওয়ান দিক বদলে।

#5. বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে নরম করুন ব্রেস্ট:
অনেক সময় দুধ জমে ব্রেস্ট খুব শক্ত হয়ে গেলে বাচ্চার ল্যাচ করতে অসুবিধে হয় বা এর থেকেও বুকে ও নিপলে ব্যথা হতে পারে। সেরকম মনে হলে, বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে একটু দুধ নিজে এক্সপ্রেস করে ফেলে দিন। ব্রেস্ট নরম হয়ে থাকলে বাচ্চার ল্যাচ করতেও সুবিধা হবে। (Breastfeeding Pain Relief to Treat Sore Nipples)

#6. বুকের দুধই ঘরোয়া ওষুধ: দিদা-ঠাকুমার এই টোটকা কিন্তু আজও কাজে দেয় দারুণ। বাচ্চার খাওয়া হয়ে গেলে অল্প ব্রেস্টমিল্ক নিয়ে নিপলে আলতো হাতে লাগিয়ে নিন। ব্রেস্টমিল্কের অ্যানটিবডিই নিপলকে আবার সুস্থ করে তুলবে এবং ব্যথাও কমাবে। (Home Remedies for Sore Cracked Nipples from Breastfeeding),

#7. নিয়ে আসুন হাইড্রোজেল প্যাড: নার্সিং প্যাড, ব্রা কাপ ইত্যাদির থেকে নিপলের ঘষা খাওয়া থেকে আপনাকে বাঁচাতে পারে হাইড্রোজেল প্যাড। উন্নত ভালো মানের এই প্যাড কিনলে নিপলে ঘষা যায় না ব্যথাও হয় না। (How to Prevent Sore Nipples for Breastfeeding Mothers).

#8. চিকিৎসকের মতামত নিন:ঘরোয়া টোটকা ট্রাই করুন। কিন্তু যদি মনে হয়, আপনি বেশি কষ্ট পাচ্ছেন বা কিছুতেই ব্যথা আরাম হচ্ছে না; সেক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে ভুলবেন না কিন্তু। (Breastfeeding Pain Relief)

 

নিপলে যাতে ব্যথা না হয়, তার জন্য আগেই নিন সতর্কতা (How Can You Prevent Sore or Cracked Nipples)

  • বাচ্চার ল্যাচ করার পজিশন ঠিক আছে কি না, তা খেয়াল রাখুন। ভুল পজিশনে ল্যাচ করলে কিন্তু নিপলে ব্যথা হবেই। ল্যাচিং সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পড়ে নিতে পারেন এই প্রতিবেদনটি->

    নিজের ও বাচ্চার আরাম খুঁজে নিন নিজেই। কীভাবে থাকলে দুধ খাওয়ানোর সময় আপনিও আরাম পাচ্ছেন এবং বাচ্চারও কোনও অসুবিধা হচ্ছে না; সেটা বুঝতে হবে আপনাকেই। একটু সময় লাগবে সঠিক পজিশনটা খুঁজে পেতে, সেটুকু ধৈর্য রাখুন।,

  • উন্নত, ভালো মানের ব্রেস্টপাম্প ব্যবহার করুন।
  • বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ানোর সময় নিজে আরাম করে বসুন।পাম্পিং-এর ক্ষেত্রেও একই কথা বলবো। মা আরাম করে থাকলে বা বসলে দুধের ফ্লো ভালো আসে। ফলে, নিপলের ওপর অযথা চাপ পড়ে না। (How to Prevent Sore Nipples for Breastfeeding Moms)
  • নিপলে ব্যথা হয়েছে বলে বাচ্চা যে দুধ খেতে পারবে না, এমন কিন্তু নয়। শুধু, একটু খেয়াল রাখুন এবং ঘরোয়া টোটকাগুলো মেনে চলুন। কয়েকদিনের মধ্যে আরাম না পেলে বা ব্যথা উত্তরোত্তর বেড়েই চললে কিন্তু চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া একান্ত জরুরি। (Nipple Pain While Breastfeeding; Causes and Remedies)

সূূএ:bangla.babydestination.

 

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» শিক্ষাকে বিশ্বমানে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছি মাদারীপুরে শিক্ষা মন্ত্রী ডা. দিপু মনি

» নিজেদের নিরাপত্তার কথা ভেবে সকলকেই মাস্ক ব্যবহার করতে হবে–অতিরিক্ত সচিব হায়াতুল্লাহ

» অবহেলা নয় তরুণ প্রজন্মকে সাংবাদিকতায় দিতে হবে

» সাত দাবিতে রাজপথে শিক্ষকরা

» এই গ্রামের অর্ধেক নারীই কুমারী, পাত্রের অভাবে হচ্ছে না বিয়ে!

» করোনার মাঝেও ভ্রমণ নিরাপদ যে ছয় দেশ.

» স্কুল থেকে জিয়ার নাম বাদ, নতুন নাম মুছে দিলো বিএনপির নেতাকর্মীরা

» পাঁচবিবিতে ভ্রাম্যমান আদালতে জরিমানা

» জয়পুরহাটে হেলথ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশনের ব্যানারে স্বাস্থ্য কর্মীদের কর্মবিরতি পালন

» ফুলপুরে সাংবাদিক বাবুলের দাফন সম্পন্ন, জানাযায় মানুষের ঢল

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

স্তন্যদায়ী মায়েদের নিপলে ব্যথা হতেই পারে; জেনে নিন কারণ ও ঘরোয়া উপশম!.

স্তন্যদায়ী মায়েদের নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা হওয়া খুব স্বাভাবিক এবং সাধারণ। ব্যথা সহ্য না করে বা অগ্রাহ্য না করে যদি একটু কারণগুলো জেনে রাখা যায়, তা হলে মায়েদের এই কষ্টটা আর ভোগ করতে হয় না। শুধু কারণ নয়, এর সাথে সহজ ঘরোয়া প্রতিকার এবং প্রতিরোধের উপায় জানা থাকলে তো সোনায় সোহাগা। নতুন মায়েদের কথা মাথায় রেখেই আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদন। নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা কেন হয়, ঘরোয়া উপায়ে কীভাবে আরাম পাবেন বা কী করলে আটকাতে পারবেন এই ব্যথা হওয়া; সবকিছু নিয়ে বিশদে আলোচনা রইল এইখানেই। আজ না হয় নিজের আরামের খাতিরেই পড়ে ফেলুন। (Nipple Pain While Breastfeeding; Causes and Remedies, How to Care for Your Nipples While You’re Breastfeeding)

 

নিপলে ব্যথা কেন হয়? (What Causes Nipple Pain)

যেসব মায়েরা বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ান, তাদের নিপল বা স্তনবৃন্তে ব্যথা হওয়াটা অস্বাভাবিক কিছু নয়। আর, ব্যথা হলেও মায়েরা এটা স্বাভাবিক ধরে নিয়ে সহ্য করেন। এই ভাবনাটি কিন্তু সম্পূর্ণ ঠিক নয়। শুধু ল্যাচিং-এ সমস্যার কারণে নয়, নিপলে ব্যথা হতে পারে আরও কিছু কারণে। (Pain During Breastfeeding: Causes & Remedies) যেমন,

  • নতুন নতুন ব্রেস্টফিড করালে: নতুন মায়েরা অর্থাৎ যারা প্রথমবার মা হয়েছেন, তাদের ক্ষেত্রে এটা খুবই স্বাভাবিক। মা এবং বাচ্চা দু’জনেরই অভ্যেস হতে সময় লাগে কিছুটা। তাই বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ানো শুরু করার প্রথম এক-দুই সপ্তাহ নিপলে হাল্কা ব্যথা হতে পারে বা নিপল স্পর্শকাতর হয়ে যেতে পারে। (What Causes Sore Nipples)

 

  • ল্যাচিং-এ সমস্যা: বাচ্চা যদি ঠিকভাবে ল্যাচ করতে না পারে, তা হলে সে দুধ খাওয়ার চেষ্টা করতে গিয়ে নিপলে কামড়ে দিতে পারে বা ভুল পজিশনেই ল্যাচ করার চেষ্টা করে। এরিওলা মুখে না নিয়ে সে শুধু কামড়ে যায় নিপলই। এর থেকেও মায়ের নিপলে ব্যথা হয়। বাড়াবাড়ি হলে নিপল ফেটে যায়, র‍্যাশ বা ব্লিসটারও তৈরি হয়।,

 

  • বেশি জোরে ল্যাচ: কিছু খুদে আছে, যাদের ধৈর্য একটু কম। খিদের চোটে সে ছোট্ট শরীরের সবটুকু শক্তি দিয়ে দুধ টানতে চেষ্টা করে। নিপল অত্যন্ত নরম জায়গা হওয়ায় বাচ্চার ওই জোরে ল্যাচ করাও আঘাত দেয় একে। শুধু ব্যথা নয়, ক্রমাগত এরকম হতে থাকলে নিপল ফেটে রক্তও বেরিয়ে আসে।l

 

  • ভুল সাইজের নার্সিং ব্রা: সঠিক সাইজের নার্সিং ব্রা কিনুন। সঠিক ব্রা না পরলে তা নিপলে বেশি চাপ ফেলতে পারে এবং নিপলে ব্যথা সৃষ্টি করতে পারে।,

 

  • বন্ধ হয়ে যাওয়া মিল্ক ডাকট বা দুধ গ্রন্থি: বাচ্চা অনেকক্ষণ দুধ না খেলে, দুধ জমে গিয়ে ব্রেস্ট পাথরের মতো শক্ত হয়ে যায় এবং ব্যথা করে। এছাড়া, মিল্ক ডাকটে যদি কোনও ভাবে দুধ শক্ত হয়ে জমে গিয়ে তা বন্ধ হয়ে যায়; তা থেকেও নিপলে ব্যথার উদ্রেক হয়।

 

  • পাম্প করার যন্ত্র:আপনি যদি ব্রেস্ট পাম্প ব্যবহার করেন, তা হলে পাম্প করার সময় সেটা আরামদায়ক ভাবে বসছে কি না বা পাম্পিং-এর সময় আপনার অস্বস্তি হচ্ছে কি না; খেয়াল রাখুন সেদিকেও। পাম্পিং-এর স্পিড বেশি করলে নিপলে ব্যথা হওয়া খুব স্বাভাবিক। তাই, ব্রেস্ট পাম্প কেনার আগে দেখে নিন আপনার জন্য কোনটা আরামদায়ক হবে।.

 

  • ম্যাসটাইটিস:ম্যাসটাইটিস হলে কিন্তু বেশ কষ্টদায়ক এবং সত্বর চিকিৎসা প্রয়োজন। বাচ্চার যখন মায়ের দুধ খায়, তখন তার মুখ থেকে কোনও জীবাণু ফাটা নিপলের চামড়া দিয়ে মিল্ক ডাকট বা দুধ গ্রন্থিতে ঢুকে গেলে নিপলে মারাত্মক ব্যথা ও ইনফেকশন হতে পারে। নিপল ফুলে গিয়ে মায়ের জ্বরও আসতে পারে।

 

  • থ্রাস: এইটি একধরনের ইস্ট ইনফেকশন। এক্ষেত্রে, নিপলে সাদা সাদা ছোপ দাগ দেখা দেয়। একইরকম দাগ হয় বাচ্চার মুখেও। এই ইনফেকশন হলে বাচ্চাকে দুধ খাওয়ানোর সময় নিপল জ্বালা হওয়ার মতো ব্যথা করে। লাল, চকচকে ভাব চলে আসে এবং নিপলের চামড়াও উঠতে থাকে।

 

নিপলে ব্যথা সারাতে বিশেষ কিছু কার্যকরী টিপস
(Tips for Treating Nipple Pain; Nipple Pain Remedies & Preventative Measures)

#1. সেঁক দিন: পরিষ্কার একটা কাপড় হালকা গরম জলে ভিজিয়ে নিয়ে অতিরিক্ত জল নিংড়ে ফেলে দিন। এবার ওই কাপড়টা সরাসরি নিপলের ওপর ফেলে রাখুন কিছুক্ষণ। কাপড়ের গরম ভাবটা চলে গেলে আবার জলে ডুবিয়ে নিন। এরকম করুন বেশ কিছুক্ষণ। (Sore Nipples and Breastfeeding; Treatment and Prevention)

#2. কাজে আসবে নুন জল: নুন মেশানো জল বা স্যালাইন ওয়াটার দিয়ে ধুয়ে নিন নিপল। বাচ্চাকে খাওয়ানোর পরে এটা করুন। এছাড়াও, নুন জলে তুলো ভিজিয়ে নিপলের ওপর কিছুক্ষণ ধরে থাকলেও আরাম পাবেন। (How to Treat Sore Nipples) এতে ইনফেকশন হওয়ার আশঙ্কাও কমে আবার নিপলের নরম চামড়ায় আঘাত লাগলে তা জলদি সেরেও যায়।

#3. ঠান্ডাভাবে আরাম পাবেন: ঠান্ডা টি ব্যাগ, জেল প্যাড আরাম দিতে পারে। যদি নিপলে খুব ব্যথা হয়ে থাকে; তা হলে বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে কিছু সময় বরফের সেঁক দিন। এতে আপনি আরামও পাবেন আবার বাচ্চা খাওয়ার সময় অতটা ব্যথা হবে না। (Nipple Pain Remedies)

 

 

#4. দিক বদলে খাওয়ান:সবসময় একদিক থেকেই না খাইয়ে বাচ্চাকে খাওয়ান দিক বদলে।

#5. বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে নরম করুন ব্রেস্ট:
অনেক সময় দুধ জমে ব্রেস্ট খুব শক্ত হয়ে গেলে বাচ্চার ল্যাচ করতে অসুবিধে হয় বা এর থেকেও বুকে ও নিপলে ব্যথা হতে পারে। সেরকম মনে হলে, বাচ্চাকে খাওয়ানোর আগে একটু দুধ নিজে এক্সপ্রেস করে ফেলে দিন। ব্রেস্ট নরম হয়ে থাকলে বাচ্চার ল্যাচ করতেও সুবিধা হবে। (Breastfeeding Pain Relief to Treat Sore Nipples)

#6. বুকের দুধই ঘরোয়া ওষুধ: দিদা-ঠাকুমার এই টোটকা কিন্তু আজও কাজে দেয় দারুণ। বাচ্চার খাওয়া হয়ে গেলে অল্প ব্রেস্টমিল্ক নিয়ে নিপলে আলতো হাতে লাগিয়ে নিন। ব্রেস্টমিল্কের অ্যানটিবডিই নিপলকে আবার সুস্থ করে তুলবে এবং ব্যথাও কমাবে। (Home Remedies for Sore Cracked Nipples from Breastfeeding),

#7. নিয়ে আসুন হাইড্রোজেল প্যাড: নার্সিং প্যাড, ব্রা কাপ ইত্যাদির থেকে নিপলের ঘষা খাওয়া থেকে আপনাকে বাঁচাতে পারে হাইড্রোজেল প্যাড। উন্নত ভালো মানের এই প্যাড কিনলে নিপলে ঘষা যায় না ব্যথাও হয় না। (How to Prevent Sore Nipples for Breastfeeding Mothers).

#8. চিকিৎসকের মতামত নিন:ঘরোয়া টোটকা ট্রাই করুন। কিন্তু যদি মনে হয়, আপনি বেশি কষ্ট পাচ্ছেন বা কিছুতেই ব্যথা আরাম হচ্ছে না; সেক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে ভুলবেন না কিন্তু। (Breastfeeding Pain Relief)

 

নিপলে যাতে ব্যথা না হয়, তার জন্য আগেই নিন সতর্কতা (How Can You Prevent Sore or Cracked Nipples)

  • বাচ্চার ল্যাচ করার পজিশন ঠিক আছে কি না, তা খেয়াল রাখুন। ভুল পজিশনে ল্যাচ করলে কিন্তু নিপলে ব্যথা হবেই। ল্যাচিং সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পড়ে নিতে পারেন এই প্রতিবেদনটি->

    নিজের ও বাচ্চার আরাম খুঁজে নিন নিজেই। কীভাবে থাকলে দুধ খাওয়ানোর সময় আপনিও আরাম পাচ্ছেন এবং বাচ্চারও কোনও অসুবিধা হচ্ছে না; সেটা বুঝতে হবে আপনাকেই। একটু সময় লাগবে সঠিক পজিশনটা খুঁজে পেতে, সেটুকু ধৈর্য রাখুন।,

  • উন্নত, ভালো মানের ব্রেস্টপাম্প ব্যবহার করুন।
  • বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়ানোর সময় নিজে আরাম করে বসুন।পাম্পিং-এর ক্ষেত্রেও একই কথা বলবো। মা আরাম করে থাকলে বা বসলে দুধের ফ্লো ভালো আসে। ফলে, নিপলের ওপর অযথা চাপ পড়ে না। (How to Prevent Sore Nipples for Breastfeeding Moms)
  • নিপলে ব্যথা হয়েছে বলে বাচ্চা যে দুধ খেতে পারবে না, এমন কিন্তু নয়। শুধু, একটু খেয়াল রাখুন এবং ঘরোয়া টোটকাগুলো মেনে চলুন। কয়েকদিনের মধ্যে আরাম না পেলে বা ব্যথা উত্তরোত্তর বেড়েই চললে কিন্তু চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া একান্ত জরুরি। (Nipple Pain While Breastfeeding; Causes and Remedies)

সূূএ:bangla.babydestination.

 

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।(দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -মাকসুদা লিসা

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com