মোদি দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ: মমতা

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ বলে মনে করেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি তার অভিযোগ রাজ্যে দাঙ্গা লাগিয়ে রাজনৈতিকভাবে লাভবান হওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছে বিজেপি। কিন্তু সে চেষ্টা সফল হবে না দাবি করে মেটিয়াবুরুজে এক সভায় মমতা বলেন, ‘আমি মরে গেলেও রাজ্যে একটা দাঙ্গা করতে কাউকে দেব না’।

তার অভিযোগ ডায়মন্ডহারবার লোকসভা কেন্দ্রের নির্বাচনে জিততে দাঙ্গা করার পরিকল্পনা নিয়েছে বিজেপি। তার কথায়, ‘মোদি ডায়মন্ড হারবারে দাঙ্গা করতে চান। তিনি দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ। মোদি আবার ক্ষমতায় এলে দেশের কী হবে! বাংলা এমন একটা জায়গা যেখানে সমস্ত ধর্ম একসঙ্গে মিলেমিশে থাকে আমি আমার জীবন দিয়ে দেব কিন্তু বাংলায় দাঙ্গা করতে দেব না’।

রাজ্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে সংখ্যালঘু দূষণের অভিযোগ আগেই উঠেছে। এপ্রসঙ্গে মমতা বলেন লোকজন ভাবে আমি মুসলমানদের তোষণ করি। আচ্ছা বলুন তো তোষণ মানে কী? মুসলমান সম্প্রদায়ের মানুষরাও এই রাজ্যের অংশ। কেন এটাকে নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছে বিজেপি?

ওয়াজিদ আলি শাহর স্মৃতি বিজড়িত মেটিয়াবুরুজে সভা থেকে মমতা আরও বলেন, শুধুমাত্র তার পরিবারের সদস্য বলেই অভিষেককেও নিশানা করা হচ্ছে। তার নামে নানা রকম অসত্য প্রচার করা হচ্ছে।

মেটিয়াবুরুজের পর উত্তর চব্বিশ পরগনা বিড়লাপুরে সভায় মুখ্যমন্ত্রী বলেন, দেশের গণতন্ত্রকে বাঁচাতে মোদিকে ক্ষমতাচ্যুত করতে হবে। আমি বারবার রাজ্যের সমস্ত আসনে জিততে চেয়েছি। তার একটাই কারণ, যাতে নতুন সরকার তৈরি হওয়ার ক্ষেত্রে বাংলা নিজের বক্তব্য স্পষ্টভাবে তুলে ধরতে পারে।

এই সভা সমাপ্ত হওয়ার পর নামখানাতেও সভা করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখান থেকে তিনি বলেন গত পাঁচ বছরে দেশের জন্য কোনও কাজ করেননি প্রধানমন্ত্রী। আর এবারও যদি চৌকিদারকে দায়িত্ব দেওয়া হয় তাহলে নিজেদের ধ্বংস করা হবে। ওর দলকে একটা ভোট না দিয়েই জবাব দিতে পারবে মানুষ। মমতার দাবি ভোট পেতে সমস্ত রকম কাজ করতে পারে বিজেপি। নেমে যেতে পারে যেকোনো স্তরে।

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» রূপগঞ্জে বাল্য বিয়ে পন্ড করলেন এ্যাসিল্যান্ড আফিফা খাঁন

» মাস্ক ছাড়া রাস্তায় বের হলেই আইনানুগ ব্যবস্থা

» ঝালকাঠিতে আম্ফানে বিধ্বস্ত ঘর-বাড়ি নির্মাণে সেনাবাহিনী

» ৬ কোটি মানুষকে ত্রাণ সহায়তা দিয়েছে সরকার

» বিকেল ৪টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে দোকান-শপিংমল

» করোনা পরিস্থিতি বজায় থাকলে প্রাথমিকে ঘরে বসেই পরীক্ষা

» করোনা কালীন অসহায় মানুষের পাশে মানবতার ফেরিওয়ালা হয়ে আইনজীবীদের নেত্রী যুথী

» এনায়েতপুরের জনপদ যমুনা নদীর তাণ্ডবে বেসামাল

» হোমনার করোনায় আক্রান্তে যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার ঢাকায় মৃত্যু

» হোমনায়  স্বামীসহ পালিয়েছে  করোনা আক্রান্ত নারী

 

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, সাবেক ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা – আনোয়ার হোসেন জীবন, উপশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদ।

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

সহযোগী সম্পাদকঃ মোঃ ফারুক হোসেন

বিশেষ প্রতিনিধি:মাকসুদা লিসা

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

মোদি দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ: মমতা

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ বলে মনে করেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি তার অভিযোগ রাজ্যে দাঙ্গা লাগিয়ে রাজনৈতিকভাবে লাভবান হওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছে বিজেপি। কিন্তু সে চেষ্টা সফল হবে না দাবি করে মেটিয়াবুরুজে এক সভায় মমতা বলেন, ‘আমি মরে গেলেও রাজ্যে একটা দাঙ্গা করতে কাউকে দেব না’।

তার অভিযোগ ডায়মন্ডহারবার লোকসভা কেন্দ্রের নির্বাচনে জিততে দাঙ্গা করার পরিকল্পনা নিয়েছে বিজেপি। তার কথায়, ‘মোদি ডায়মন্ড হারবারে দাঙ্গা করতে চান। তিনি দেশের সবচেয়ে বড় বিপদ। মোদি আবার ক্ষমতায় এলে দেশের কী হবে! বাংলা এমন একটা জায়গা যেখানে সমস্ত ধর্ম একসঙ্গে মিলেমিশে থাকে আমি আমার জীবন দিয়ে দেব কিন্তু বাংলায় দাঙ্গা করতে দেব না’।

রাজ্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে সংখ্যালঘু দূষণের অভিযোগ আগেই উঠেছে। এপ্রসঙ্গে মমতা বলেন লোকজন ভাবে আমি মুসলমানদের তোষণ করি। আচ্ছা বলুন তো তোষণ মানে কী? মুসলমান সম্প্রদায়ের মানুষরাও এই রাজ্যের অংশ। কেন এটাকে নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছে বিজেপি?

ওয়াজিদ আলি শাহর স্মৃতি বিজড়িত মেটিয়াবুরুজে সভা থেকে মমতা আরও বলেন, শুধুমাত্র তার পরিবারের সদস্য বলেই অভিষেককেও নিশানা করা হচ্ছে। তার নামে নানা রকম অসত্য প্রচার করা হচ্ছে।

মেটিয়াবুরুজের পর উত্তর চব্বিশ পরগনা বিড়লাপুরে সভায় মুখ্যমন্ত্রী বলেন, দেশের গণতন্ত্রকে বাঁচাতে মোদিকে ক্ষমতাচ্যুত করতে হবে। আমি বারবার রাজ্যের সমস্ত আসনে জিততে চেয়েছি। তার একটাই কারণ, যাতে নতুন সরকার তৈরি হওয়ার ক্ষেত্রে বাংলা নিজের বক্তব্য স্পষ্টভাবে তুলে ধরতে পারে।

এই সভা সমাপ্ত হওয়ার পর নামখানাতেও সভা করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখান থেকে তিনি বলেন গত পাঁচ বছরে দেশের জন্য কোনও কাজ করেননি প্রধানমন্ত্রী। আর এবারও যদি চৌকিদারকে দায়িত্ব দেওয়া হয় তাহলে নিজেদের ধ্বংস করা হবে। ওর দলকে একটা ভোট না দিয়েই জবাব দিতে পারবে মানুষ। মমতার দাবি ভোট পেতে সমস্ত রকম কাজ করতে পারে বিজেপি। নেমে যেতে পারে যেকোনো স্তরে।

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



 

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, সাবেক ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা – আনোয়ার হোসেন জীবন, উপশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদ।

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

সহযোগী সম্পাদকঃ মোঃ ফারুক হোসেন

বিশেষ প্রতিনিধি:মাকসুদা লিসা

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com