জাইমার বিএনপির নেতৃত্বে আসার তথ্য মনগড়া: মির্জা ফখরুল

সম্প্রতি গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয় বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থতা ও তারেক রহমানের দেশে ফেরা অনিশ্চিত হওয়ায় বিএনপির দায়িত্বে আসছেন তারেকের মেয়ে জাইমা রহমান। তবে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এমন খবরকে ‘মনগড়া’ আখ্যা দিয়ে বলেছেন, ‘বাংলাদেশের সাংবাদিকরা মাঝেমধ্যে গল্প তৈরি করতে পছন্দ করেন এবং তা নিয়ে আলোচনাও হয়৷ এটা জাতিগত বিনোদনও বটে৷’

 

জার্মানভিত্তিক সংবাদ সংস্থা ডয়চে ভেলে বাংলার একটি অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

প্রতিষ্ঠার ৪৩ বছরে পা দেয়া বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া দুর্নীতি মামলায় দুই বছর কারাভোগের পর নির্বাহী আদেশে মুক্ত অবস্থায় আছেন। তবে তিনি শারীরিকভাবে খুবই অসুস্থ। পাশাপাশি মুক্তির শর্তের কারণে এখন রাজনীতিতে সক্রিয়ও হতে পারছেন না।

 

অন্যদিকে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান দীর্ঘদিন ধরে লন্ডনে অবস্থান করছেন। একাধিক মামলায় তার বিরুদ্ধে রায়ও হয়েছে। তিনিও অসুস্থ রয়েছেন বলে বিএনপি নেতারা বলছেন। তবে বর্তমান অবস্থায় তিনি কবে নাগাদ দেশে ফিরতে পারবেন তাও অনিশ্চিত। যে কারণে কিছুদিন আগে তারেকের মেয়ে জাইমা বিএনপির নেতৃত্বে আসতে পারেন এমন গুঞ্জন শোনা যায়।

 

ডয়চে ভেলের অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুলের কাছে জানতে চাওয়া হয় -বিভিন্ন সময়ে তারেক রহমানের মেয়ে জাইমা রহমানকেও দলের দায়িত্বে নিয়ে আসার কথা শোনা গেছে। জবাবে তিনি বলেন, ‘এটা মনগড়া তথ্য।’

 

তারেক রহমানের দেশে ফেরা বা অন্য কারো হাতে দায়িত্ব হস্তান্তরেরও কোনো চিন্তাভাবনা নেই বলে জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল।

 

দলের দায়িত্বে অন্য কাউকে আনার পরিকল্পনা আছে কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এই মুহূর্তে তারেক রহমান দেশে আসুন দলই তা চায় না৷’

 

ফখরুল বলেন, ‘তারেক রহমানের দেশে ফেরা সরকারই বন্ধ করে দিয়েছে। যেসব মামলাতে একতরফা রায় দিয়ে দিয়েছে, যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং ৩৬-৩৭টা মামলায় তার অন্য সাজাও হয়েছে। সুতরাং এই মুহূর্তে তার দেশে ফেরাটা দলই মনে করছে না নিরাপদ হবে। দলের সার্বিক নেতৃত্বেও এর ফলে সংকট সৃষ্টি হতে পারে।’

 

ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সুস্থ রয়েছেন, খালেদা জিয়াও যথেষ্ট সক্ষম রয়েছেন বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল।

 

ফখরুলের দাবি, মামলা থেকে বের হয়ে আসতে পারলে বা কোনোভাবে ‘রাজনৈতিক পটপরিবর্তন’ হলে খালেদা জিয়াই দেশের নেতৃত্ব দিতে সম্পূর্ণ সক্ষম।

 

১৫ আগস্ট খালেদা জিয়ার জন্মদিনে উপহার পাঠালেও পরবর্তী সময়ে তা প্রত্যাহার করার সংবাদও বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে। তবে এর সত্যতা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করেন মির্জা ফখরুল।

 

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘চীনা দূতাবাসের পক্ষ থেকে এমন কোনো বক্তব্য আসেনি, এসেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে। আমরা নিজেরাও কনফিউজড৷ চীনের কূটনীতি এতটা কাঁচা নয়।’

 

মহাসচিব হিসেবে বিএনপিকে নেতৃত্ব দিতে ব্যর্থতার অভিযোগ আছে- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এটা আমার বিবেচনার বিষয় নয়, এটা জনগণ বলবে, পার্টি সিদ্ধান্ত নেবে৷ কিন্তু দল এখনো আমাকে এমন কোনো কথা বলেনি।’

 

ফখরুল বলেন, ‘দেশে কী আসলেই কোনো রাজনীতি আছে? ২০১২ সালে তত্ত্বাবধায়ক সরকার বাতিলের পর থেকে আওয়ামী লীগ একদলীয় সরকারব্যবস্থা চালু করতে চাচ্ছে। রাজনৈতিক দলগুলোকে অকার্যকর করে দেয়া, রাজনৈতিক নেতৃত্বদের হেনস্তা করা হচ্ছে৷ এখন রাজনৈতিক দল, এমনকি মিডিয়াও স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারছে না।’

 

বিএনপি এখন রাজনীতির ঠিক পথেই আছে বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, ‘বিএনপি উদারপন্থি রাজনৈতিক দল। কিন্তু দেশে এখন স্বাভাবিকভাবে রাজনীতি করার কোনো উপায় নেই। দেশে গণতন্ত্রের কোনোকিছুই অবশিষ্ট নেই।’সূএ:ঢাকাটাইমস

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে বিচার বিভাগকে অবরুদ্ধ করা হয়েছিল: আইনমন্ত্রী

» রাষ্ট্রপতির সঙ্গে ভারতের হাই কমিশনারের বিদায়ী সাক্ষাৎ

» শেখ হাসিনার জন্ম না হলে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়ন অসম্ভব হতো

» অনলাইন নিউজ পোর্টালের নিবন্ধন দ্রুত শেষ করতে তাগিদ

» লুডু খেলায় প্রতারণার অভিযোগে বাবার বিরুদ্ধে মেয়ের মামলা

» ধর্ষকদের কোনো দল নেই, তারা ধর্ষক: ছাত্রলীগ

» অক্টোবর-নভেম্বরে ‘ও’, ‘এ’ লেভেল পরীক্ষা

» আবাসিক হোটেলে উঠে যে সব চেক করবেন!

» ছয় মাস পর গেট খুলল রমনা পার্কের

» মাহবুবে আলমের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা – মাকসুদা লিসা।

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...

জাইমার বিএনপির নেতৃত্বে আসার তথ্য মনগড়া: মির্জা ফখরুল

সম্প্রতি গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয় বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থতা ও তারেক রহমানের দেশে ফেরা অনিশ্চিত হওয়ায় বিএনপির দায়িত্বে আসছেন তারেকের মেয়ে জাইমা রহমান। তবে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এমন খবরকে ‘মনগড়া’ আখ্যা দিয়ে বলেছেন, ‘বাংলাদেশের সাংবাদিকরা মাঝেমধ্যে গল্প তৈরি করতে পছন্দ করেন এবং তা নিয়ে আলোচনাও হয়৷ এটা জাতিগত বিনোদনও বটে৷’

 

জার্মানভিত্তিক সংবাদ সংস্থা ডয়চে ভেলে বাংলার একটি অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব।

প্রতিষ্ঠার ৪৩ বছরে পা দেয়া বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া দুর্নীতি মামলায় দুই বছর কারাভোগের পর নির্বাহী আদেশে মুক্ত অবস্থায় আছেন। তবে তিনি শারীরিকভাবে খুবই অসুস্থ। পাশাপাশি মুক্তির শর্তের কারণে এখন রাজনীতিতে সক্রিয়ও হতে পারছেন না।

 

অন্যদিকে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান দীর্ঘদিন ধরে লন্ডনে অবস্থান করছেন। একাধিক মামলায় তার বিরুদ্ধে রায়ও হয়েছে। তিনিও অসুস্থ রয়েছেন বলে বিএনপি নেতারা বলছেন। তবে বর্তমান অবস্থায় তিনি কবে নাগাদ দেশে ফিরতে পারবেন তাও অনিশ্চিত। যে কারণে কিছুদিন আগে তারেকের মেয়ে জাইমা বিএনপির নেতৃত্বে আসতে পারেন এমন গুঞ্জন শোনা যায়।

 

ডয়চে ভেলের অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুলের কাছে জানতে চাওয়া হয় -বিভিন্ন সময়ে তারেক রহমানের মেয়ে জাইমা রহমানকেও দলের দায়িত্বে নিয়ে আসার কথা শোনা গেছে। জবাবে তিনি বলেন, ‘এটা মনগড়া তথ্য।’

 

তারেক রহমানের দেশে ফেরা বা অন্য কারো হাতে দায়িত্ব হস্তান্তরেরও কোনো চিন্তাভাবনা নেই বলে জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল।

 

দলের দায়িত্বে অন্য কাউকে আনার পরিকল্পনা আছে কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এই মুহূর্তে তারেক রহমান দেশে আসুন দলই তা চায় না৷’

 

ফখরুল বলেন, ‘তারেক রহমানের দেশে ফেরা সরকারই বন্ধ করে দিয়েছে। যেসব মামলাতে একতরফা রায় দিয়ে দিয়েছে, যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং ৩৬-৩৭টা মামলায় তার অন্য সাজাও হয়েছে। সুতরাং এই মুহূর্তে তার দেশে ফেরাটা দলই মনে করছে না নিরাপদ হবে। দলের সার্বিক নেতৃত্বেও এর ফলে সংকট সৃষ্টি হতে পারে।’

 

ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সুস্থ রয়েছেন, খালেদা জিয়াও যথেষ্ট সক্ষম রয়েছেন বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল।

 

ফখরুলের দাবি, মামলা থেকে বের হয়ে আসতে পারলে বা কোনোভাবে ‘রাজনৈতিক পটপরিবর্তন’ হলে খালেদা জিয়াই দেশের নেতৃত্ব দিতে সম্পূর্ণ সক্ষম।

 

১৫ আগস্ট খালেদা জিয়ার জন্মদিনে উপহার পাঠালেও পরবর্তী সময়ে তা প্রত্যাহার করার সংবাদও বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে। তবে এর সত্যতা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করেন মির্জা ফখরুল।

 

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘চীনা দূতাবাসের পক্ষ থেকে এমন কোনো বক্তব্য আসেনি, এসেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে। আমরা নিজেরাও কনফিউজড৷ চীনের কূটনীতি এতটা কাঁচা নয়।’

 

মহাসচিব হিসেবে বিএনপিকে নেতৃত্ব দিতে ব্যর্থতার অভিযোগ আছে- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এটা আমার বিবেচনার বিষয় নয়, এটা জনগণ বলবে, পার্টি সিদ্ধান্ত নেবে৷ কিন্তু দল এখনো আমাকে এমন কোনো কথা বলেনি।’

 

ফখরুল বলেন, ‘দেশে কী আসলেই কোনো রাজনীতি আছে? ২০১২ সালে তত্ত্বাবধায়ক সরকার বাতিলের পর থেকে আওয়ামী লীগ একদলীয় সরকারব্যবস্থা চালু করতে চাচ্ছে। রাজনৈতিক দলগুলোকে অকার্যকর করে দেয়া, রাজনৈতিক নেতৃত্বদের হেনস্তা করা হচ্ছে৷ এখন রাজনৈতিক দল, এমনকি মিডিয়াও স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারছে না।’

 

বিএনপি এখন রাজনীতির ঠিক পথেই আছে বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, ‘বিএনপি উদারপন্থি রাজনৈতিক দল। কিন্তু দেশে এখন স্বাভাবিকভাবে রাজনীতি করার কোনো উপায় নেই। দেশে গণতন্ত্রের কোনোকিছুই অবশিষ্ট নেই।’সূএ:ঢাকাটাইমস

Facebook Comments
Share Button

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা – মাকসুদা লিসা।

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

 

 

 

 

১১২৫ পূর্ব মনিপুর , মিরপুর -২ ঢাকা -১২১৬

আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন:ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০

Design & Developed BY ThemesBazar.Com