উদ্বোধনের আগেই জৈন্তাপুরের চিকারখাল সেতুতে ফাটল

সিলেটের জৈন্তাপুরে চিকারখাল নদীতে নির্মিত সেতুর পাইলে (পিলার) উদ্বোধনের আগেই ফাটল দেখা দিয়েছে। গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতেই সেতুর গার্ডওয়াল ধুয়ে মাটি সরে ও ভেসে গিয়ে পাইলিং পিলারের ফাটলও বের হয়ে এসেছে। বর্ষায় সেতুটি নদীতে তলিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসী।

জৈন্তাপুর উপজেলা সদরের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগের লক্ষ্যে খারুবিল ও জৈন্তাপুর ইউনিয়ন এবং জৈন্তাপুর বাজার সড়কে যাতায়াতের সুবিধার্থে সেতুটি নির্মিত হয়। ২ কোটি ৩৭ লাখ টাকা ব্যয়ে ৫৪ মিটার আরসিসি গার্ডার সেতুটি তৈরি করেছে স্থানীয় সরকার অধিদপ্তর। ২০১৭ সালের ৩১ ডিসেম্বর শুরু করে সম্প্রতি এর নির্মাণ কাজ শেষ করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘নূরুল হক অ্যান্ড তৈয়বুর রহমান জেবি’।

দুই পাড়ের স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান তাদের মর্জিমতো ৮০ ফুটের পরিবর্তে কোনো কোনো পিলারে সেতুর পাইলিং ৩৫-৪০ ফুট গভীরে করে ঢালাইয়ের কাজ শেষ করেছে। ঢালাই কাজে নিম্নমানের কাদা মেশানো বালু ও পাথর, মরা ও সিঙ্গেল পাথর, সিমেন্ট এবং নির্মাণ সমাগ্রী ব্যবহার করা হয়েছে।

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘নূরুল হক এন্ড তৈয়বুর রহমান জেবি’র স্বত্বাধিকারী দাবি করেন, ‘জৈন্তাপুর স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) নির্দেশনায় পুরো কাজ হয়েছে। পাইলিং কাজের সময় পশ্চিম পাশে কয়েকটি পিলার ৩৫ থেকে ৪০ ফুটের মধ্যে ঢালাই করা হয়েছে। পাইলিং (পিলার) যতোটুকু গভীরে গেছে, ততোটুকুর বিলই আমাকে দেওয়া হবে।’
তিনি স্বীকার করেন, সেতুটির পূর্বপাশের প্রধান পাইলিংয়ে (মেইন পিলার) মূল সেতুর ভারসাম্য রক্ষায় ক্যাপ স্থাপনের স্থানটিতে ফাটলের বিষয়টি শুনেছেন। বলেন, ‘নদীতে পানি থাকায় আমি ঘটনাস্থলে যেতে পারিনি।’

তবে সেতুর অন্যান্য কাজ যথানিয়মে হয়েছে, দাবি এই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের মালিকের।
এলজিইডি’র জৈন্তাপুর উপজেলা সহকারী প্রকৌশলী তানভীর আহমদ বলেন, সঠিক নিয়মে কাজ হয়েছে, কোনো সন্দেহ ন নেই। ‘পানির স্রােত’ বেশি হওয়ায় গার্ডার ভেঙে যায়। এতে সেতুর কোনো ক্ষতি হবে না।

উপজেলা প্রকৌশলী মো. হাসানুজ্জামান কোনো কোনো পিলারে ৩৫-৪০ ফুট গভীরে পাইলিং ঢালাইয়ের কাজের কথা স্বীকার করে বলেন, ক্যাপে ফাটলের বিষয় তার জানা ছিলো না। বিষয়টি জানার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এটির প্লাস্টারিং করলে সমাধান হয়ে যাবে। আমাদের সময় ডটকম

Facebook Comments
Share

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» দূষণে মরে যাচ্ছে বরিশাল ডিসি লেকের বিভিন্ন প্রজাতির মাছ

» টস জিতে ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ

» রাজশাহীতে হেরোইনসহ ১জন গ্রেপ্তার

» মোয়াজ্জেমের জামিন নামঞ্জুর, কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ

» মোরগ মুসাল্লাম রেসিপি

» ওভারিয়ান সিস্ট নাকি টিউমার | কখন কী করা উচিত?

» নবজাতকের জন্ডিস | প্রকারভেদ, কেন হয় ও করণীয় কী?

» পাবলিক পরীক্ষায় পাস নম্বর ৪০!

» দান সদকাহ বিষয়ে রাসুল (সা.) যা বলেন

» পঞ্চম ধাপে ২৩ উপজেলায় ভোট গ্রহণ কাল, ৬টি উপজেলায় থাকছে ইভিএম পদ্ধতি

উপদেষ্টা – আনোয়ার হোসেন জীবন

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -আবুল কালাম আজাদ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক

ঢাকা সাব-এডিটরস কাউন্সিল

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : শেখ মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

সহযোগী সম্পাদকঃ মোঃ ফারুক হোসেন

বার্তা সম্পাদক :এ.এইচ.এম.শাহ্জাহান

 

 

 

 

ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০,০১৯১১৪৯০৫০৫

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
পরীক্ষামূলক প্রচার...
,

উদ্বোধনের আগেই জৈন্তাপুরের চিকারখাল সেতুতে ফাটল

সিলেটের জৈন্তাপুরে চিকারখাল নদীতে নির্মিত সেতুর পাইলে (পিলার) উদ্বোধনের আগেই ফাটল দেখা দিয়েছে। গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতেই সেতুর গার্ডওয়াল ধুয়ে মাটি সরে ও ভেসে গিয়ে পাইলিং পিলারের ফাটলও বের হয়ে এসেছে। বর্ষায় সেতুটি নদীতে তলিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসী।

জৈন্তাপুর উপজেলা সদরের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগের লক্ষ্যে খারুবিল ও জৈন্তাপুর ইউনিয়ন এবং জৈন্তাপুর বাজার সড়কে যাতায়াতের সুবিধার্থে সেতুটি নির্মিত হয়। ২ কোটি ৩৭ লাখ টাকা ব্যয়ে ৫৪ মিটার আরসিসি গার্ডার সেতুটি তৈরি করেছে স্থানীয় সরকার অধিদপ্তর। ২০১৭ সালের ৩১ ডিসেম্বর শুরু করে সম্প্রতি এর নির্মাণ কাজ শেষ করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘নূরুল হক অ্যান্ড তৈয়বুর রহমান জেবি’।

দুই পাড়ের স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান তাদের মর্জিমতো ৮০ ফুটের পরিবর্তে কোনো কোনো পিলারে সেতুর পাইলিং ৩৫-৪০ ফুট গভীরে করে ঢালাইয়ের কাজ শেষ করেছে। ঢালাই কাজে নিম্নমানের কাদা মেশানো বালু ও পাথর, মরা ও সিঙ্গেল পাথর, সিমেন্ট এবং নির্মাণ সমাগ্রী ব্যবহার করা হয়েছে।

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘নূরুল হক এন্ড তৈয়বুর রহমান জেবি’র স্বত্বাধিকারী দাবি করেন, ‘জৈন্তাপুর স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) নির্দেশনায় পুরো কাজ হয়েছে। পাইলিং কাজের সময় পশ্চিম পাশে কয়েকটি পিলার ৩৫ থেকে ৪০ ফুটের মধ্যে ঢালাই করা হয়েছে। পাইলিং (পিলার) যতোটুকু গভীরে গেছে, ততোটুকুর বিলই আমাকে দেওয়া হবে।’
তিনি স্বীকার করেন, সেতুটির পূর্বপাশের প্রধান পাইলিংয়ে (মেইন পিলার) মূল সেতুর ভারসাম্য রক্ষায় ক্যাপ স্থাপনের স্থানটিতে ফাটলের বিষয়টি শুনেছেন। বলেন, ‘নদীতে পানি থাকায় আমি ঘটনাস্থলে যেতে পারিনি।’

তবে সেতুর অন্যান্য কাজ যথানিয়মে হয়েছে, দাবি এই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের মালিকের।
এলজিইডি’র জৈন্তাপুর উপজেলা সহকারী প্রকৌশলী তানভীর আহমদ বলেন, সঠিক নিয়মে কাজ হয়েছে, কোনো সন্দেহ ন নেই। ‘পানির স্রােত’ বেশি হওয়ায় গার্ডার ভেঙে যায়। এতে সেতুর কোনো ক্ষতি হবে না।

উপজেলা প্রকৌশলী মো. হাসানুজ্জামান কোনো কোনো পিলারে ৩৫-৪০ ফুট গভীরে পাইলিং ঢালাইয়ের কাজের কথা স্বীকার করে বলেন, ক্যাপে ফাটলের বিষয় তার জানা ছিলো না। বিষয়টি জানার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এটির প্লাস্টারিং করলে সমাধান হয়ে যাবে। আমাদের সময় ডটকম

Facebook Comments
Share

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



উপদেষ্টা – আনোয়ার হোসেন জীবন

উপদেষ্টা – মো: মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ, ঢাকা মহানগর উত্তরঃ (দপ্তর সম্পাদক)

উপদেষ্টা -আবুল কালাম আজাদ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক

ঢাকা সাব-এডিটরস কাউন্সিল

সম্পাদক ও প্রকাশক :মো সেলিম আহম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত,সম্পাদক : শেখ মোঃ আতাহার হোসেন সুজন

ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ মো: শফিকুল ইসলাম আরজু

নির্বাহী সম্পাদকঃ আনিসুল হক বাবু

সহযোগী সম্পাদকঃ মোঃ ফারুক হোসেন

বার্তা সম্পাদক :এ.এইচ.এম.শাহ্জাহান

 

 

 

 

ই-মেইল : dhakacrimenewsbd@gmail.com

মোবাইল : ০১৫৩৫১৩০৩৫০,০১৯১১৪৯০৫০৫

Design & Developed BY ThemesBazar.Com